সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পিছনে দায়ী বলিউড মাফিয়া দল। দাবি আইনজীবি সুধীর কুমার ওঝার। সুশান্তের মৃত্যুর সঙ্গে যোগসাজোশ রয়েছে বলিউডের বহু তারকাদের। তাঁরাই নাকি ঠেলে দিয়েছে সুশান্তকে মৃত্যুর দিকে। মুজফ্ফরপুরের আদালতে মামলা রুজু হয়েছে এই আট জন তারকাদের বিরুদ্ধে। ভারতীয় দন্ডবিধি অনুযায়ী, ৩০৬, ১০৯, ৫০৪ এবং ৫০৬ ধারায় মামলা রুজু হয়েছে সলমন, করণ, সঞ্জয়, একতা সহ চারজনের বিরুদ্ধে। সলমন খান, করণ জোহার, সঞ্জয়লীলা বনশালী, একতা কাপুর, দিনেশ বিজন, ভূষণ কুমার (টি-সিরিজের আধিকারী), সাজিদ নাদিয়াদওয়ালা, আদিত্য চোপড়ার নাম রয়েছে অভিযোগে। সলমনের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়িয়েছেন সনু নিগমও। তাঁর সঙ্গীত কেরিয়ারে সলমন নাকি বহুবার বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছেন বলে দাবি করলেন তিনি। 

আরও পড়ুনঃ'দয়া করে সুশান্তের মৃত্যু নিয়ে কাটাছেড়া বন্ধ করুন', ফিল্ম ক্রিটিকের প্রতি ক্ষোভ উগরে দিলেন অমিত-মনো

এবার সোশ্যাল মিডিয়ায় সতর্ক করলেন সলমন-সহ টি-সিরিজের মালিক ভূষণ কুমারকেও। তিনি একটি ভিডিও পোস্টে বলেন, "আমি সকলের কাছে কারও নাম না নিয়েই অনুরোধ করেছিলাম নিউকামারদের সঙ্গে ভালভাবে থাকতে। আত্মহত্যার আগেই শুধরে যাওয়া ভাল। আত্মহত্যার পর পরিস্থিত সামাল দিয়ে কোনও লাভ হয় না। মাফিয়ারা চাল চেলে ফেলেছে। সংবাদমাধ্যমে আমার বিরুদ্ধে প্রেস রিলিজ ছাড়া হচ্ছে। ভূষণ কুমার, তোকে বলছি। আমার সঙ্গে পাঙ্গা নিলে খুব খারাপ হয়ে যাবে। ভুলে গেলি সেসব দিন, যখন আমার পায়ে পড়ে থাকতি। বলতি আবু সালেমের থেকে তোকে বাঁচাতে।"

আরও পড়ুনঃ'সুশান্ত ফের আমার কোল থেকে জন্ম নেবে', রাখির ভিডিওতে নিন্দার ঝড়

 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

A post shared by Sonu Nigam (@sonunigamofficial) on Jun 21, 2020 at 11:20pm PDT

 

সনুর এই ভিডিও নিয়ে তোলপাড় সোশ্যাল মিডিয়া। প্রসঙ্গত, সলমনের বিরুদ্ধে বিং হিউমান শোরুমের সামনে 'সলমন খান মুর্দাবাদ' বলে স্লোগানে ভাসছে প্রতিবাদীরা। সুশান্তের মৃত্যুর জন্য দায়ী করা হচ্ছে বলিউড মাফিয়াকে। সেই গ্যাংয়ে রয়েছেন সলমন খান। মুম্বইয়ের বান্দ্রার বিং হিউমান শোরুমের সামনে চলছে প্রতিবাদ মিছিল। সলমন খান মুর্দাবাদ বলে চিৎকার করে চেলেছ সুশান্তের ভক্তরা। সেই ভিডিও ভাইরাল হয়ছিল নেটদুনিয়ায়। ব্যানার নিয়ে মিছিল শুরু করেছে প্রতিবাদীরা। ব্যানারে লেখা, সুশান্তের মৃত্যুতে সিবিআই তদন্ত চাই। আরও লেখা, সুশান্তের মৃত্যু আত্মহত্যা নয়, পরিকল্পিত খুন। বলিউডকে বয়কট করা হোক। নেপোটিজমকে বয়কট করা হোক।