ঘরোয়া ছাপোসা গৃহবধু থেকে মঙ্গলের বিজ্ঞানী-আবারও তিনি ছক ভেঙে বেরিয়ে এলেন। এতক্ষণে হয়তো বুঝতেই পারছেন কার কথা বলা হচ্ছে। তিনি হলেন বলিউডের লাইমলাইট কুইন বিদ্য়া বালন। বরাবরই ভিন্ন স্বাদের ছবি নিয়ে অনেক বেশি স্বাচ্ছন্দ্য় বোধ করেন তিনি। তাই আবারও নিজেকে একটু অন্য় ভাবে তুলে ধরছেন দর্শকদের মধ্যে। বিস্ময়প্রতিভা গণিত সম্রাজ্ঞী শকুন্তলা দেবীর  বায়োপিকে অভিনয় করতে চলেছেন তিনি।

আজ বিশ্ব গণিত দিবসে প্রকাশিত হল শকুন্তলা দেবীর বায়োপিকের নতুন মোশন পোস্টার। যেটি নিজের ট্যুইটার প্রোফাইলে পোস্ট করেছেন বিদ্যা। শুধু তাই নয়, ট্য়ুইটে তিনি জানিয়েছেন, এই পোস্টারের সঙ্গে তিনি গণিতের বিস্ময় প্রতিভাকেও স্মরণ করেছেন। ছবির এই পোস্টার প্রকাশ্য়ে আসা মাত্রই নজর কেড়েছে নেটিজেনদের।

বেঙ্গালুরুর কন্নড় পরিবারে জন্ম শকুন্তলা দেবীর। মাত্র ছয় বছর বয়সেই মাইসোর বিশ্ব বিদ্য়ালয়ে নিজের সংখ্য়াগণনার ক্ষমতা প্রদর্শন করেন। খাতায় লেখা হোক বা ক্য়ালকুলেটার কিংবা কম্পিউটার বড় অঙ্কের ক্য়ালকুলেশান তিনি মুহূর্তের মধ্য়ে মুখে মুখেই করে ফেলতেন। আর এই কারণের জন্য়ই তাকে মানব ক্য়ালকুলেটার বা মানব কম্পিউটার বলা হয়। শুধু দেশে নয়, বিদেশেও তিনি সমান ভাবে খ্য়াতির শীর্ষে ছিলেন। তার এই অসামান্য় প্রতিভার জন্য় গিনেস বুক অব ওয়র্ল্ড রেকর্ডে তিনি নিজের জায়গা করে নিয়েছেন। সংখ্য়া নিয়ে খেলার পাশাপাশি তিনি জ্য়োতিষচর্চাও করতেন। এর পাশাপাশি বই লিখেছেন জ্য়োতিষ, সমকামিতা নানা বিষয় নিয়ে। তার এই বর্ণময় জীবনকেই সেলুলয়েডের পর্দায় ফুটিয়ে তুলছেন বিদ্য়া বালন।

ছবির শুটিং চলেছ জোরকদমে। ছবিতে বিদ্য়ার মেয়ের ভূমিকায় অভিনয় করতে চলেছে সানিয়া মলহোত্র, এছাড়াও স্বামীর ভূমিকায় যীশু সেনগুপ্তকে দেখা যাবে। সবকিছু ঠিক থাকলে আগামী বছরেই মুক্তি পাচ্ছে এই ছবি।