বলিউডের হট কাপলস-এর কথা বললেই সবার আগে মনে আসে 'দীপবীর'-র নাম।  কিছু না কিছু করেই ,সোশ্যাল মিডিয়ায় লাইমলাইটে সর্বদাই রয়েছেন দীপিকা পাড়ুকোন। লকডাউনের মধ্যে একের পর এক ছবি, ভিডিওতে সোশ্যাল মিডিয়ায় নজর কেড়েছেন অভিনেত্রী । করোনা রুখতে ইতিমধ্যেই দেশে পঞ্চম দফার লকডাউন শুরু হয়েছে। লকডাউনের শুরু থেকেই নিজের মতোন করে সময় কাটানোর রসদ খুঁজে নিয়েছেন দীপিকা। লকডাউনের শুরুতেই দীপিকা পাডুকোন চলচ্চিত্রের একটি তালিকা তৈরি করে নিয়েছিলেন যা দেখে তিনি নিজে অনুপ্রাণিত হয়েছেন।

আরও পড়ুুন-প্রকাশ্য রাস্তাতেই টয়লেট করতে হয়েছিল আলিয়াকে, থ্রো-ব্যাক অভিজ্ঞতা শেয়ার করলেন অভিনেত্রী...

দীপিকার তালিকাটাও বেশ দীর্ঘ। আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র থেকে ভারতীয় ওয়েব সিরিজ, আরও অনেক কিছু রয়েছে সেই তালিকায়।  এমনকী তিনি নিজেই একা নন, তার ফ্যানেদের সঙ্গেও সোশ্যাল মিডিয়ায় তিনি তা শেয়ার করেছেন। তার ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলে সমস্ত হাইলাইট রয়েছে । যার নাম ডিপি-র সুপারিশ। সেখানে বেশ কিছু ছবির নামও জানিয়েছেন অভিনেত্রী দীপিকা। তার মধ্যে রয়েছে  মধ্যে জোজো রাবিট, ফ্যান্টম থ্রেড, হার, ইনসাইড আউট, স্লিপলেস নাইটস ইন সিটেল এবং পাতাল লোক।

আরও পড়ুন-অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী, প্রথম সন্তান আসার আগেই চিরঘুমে জনপ্রিয় অভিনেতা...

দীপিকার মতে, এটাই হল নিজেকে গড়ে তোলার মোক্ষম সময়।অন্যান্য অভিনেতাদের অভিনয় দেখে তিনি নিজের অভিনয়কে আর দৃঢ় এবং প্রসারিত করছেন। সৃজনশীলতায় দিক থেকে নিজেকে আর দক্ষ কীভাবে গড়ে তোলা যায় তার জন্যই এই অভিনব প্রয়াস। বি-টাউনের রূপোলি পর্দার অভিনেত্রী দীপিকা নিজের ক্যারিশ্মার জন্য দর্শকমহলে জনপ্রিয় । আর এই জনপ্রিয়তা ধরে রাখার জন্যই লকডাউনের মধ্যে দিনের বেশিরভাগ সময়ে নিজের কাজ থেকে বিরত না থেকে অনলাইনে বিভিন্ন স্ক্রিপ্ট বিবরণে নিজেকে আরও বেশি করে ক্রিয়েটিভ করে তুলেছেন। যা পরবর্তীতে তাকে শুটিং সেটে অনেকটাই সাহায্য করবে বলে মনে করেন দীপিকা। যদি এই লকডাউন না  হতো তাহলে তার আপকামিং 'শাকুন'-এর শুটিংয়ে শ্রীলঙ্কায় থাকতেন দীপিকা।