করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রুখে দিতে কি সক্ষম ডেক্সামেথাসোন? সেই প্রশ্নটা আবারও উঠে এল ব্রিটেনে হাসপাতালে ভর্তি করোনা রোগীদের ওপর চলা সমীক্ষার পর। মঙ্গলবার সামনে এসেছে ট্রায়ালের তথ্য। আর সেই তথ্য বিশ্লেষণ করে রীতিমত আশাবাদী গবেষক আর চিকিৎসকরা। বিট্রেনের প্রথম সারির এক দল গবেষণের নেতৃত্বেই  সমীক্ষা চলছিল। যার নাম  ছিল 'রিকভারি'। ব্রিটেনের বিজ্ঞানীদের ট্রায়ালের পর দেখা যাচ্ছে গুরুতর আক্রান্ত রোগীদের মধ্যে এই ওষুধ প্রয়োগ করায় ভালো ফল পাওয়া যাচ্ছে। 

বিট্রেনের বিজ্ঞানীরা দাবি করেছেন ডেক্সামেথাসোন প্রয়োগ করার ফলে  মৃতের সংখ্যা এক তৃতীয়াংশ হ্রাস পেয়েছে। গবেষকরা জানিয়েছেন গুরুতর আক্রান্ত রোগীদের ওপর এই ওষুধ প্রয়োগ করা হয়েছে। তাঁরা জানিয়েছেন, ভেন্টিলেটারে রয়েছে এমন রোগী অথবা যাঁদের অক্সিজেন দিতে হচ্ছে এমন রোগীদের ওই ওষুধ স্বল্প মাত্রায় দেওয়া হয়েছে। তাতে দেখা যাচ্ছে অনেকেই সুস্থ হয়ে যাচ্ছেন। অক্সফোর্ডে মার্নিট ল্যান্ড্রে এই রিকভারি সমীক্ষার সহকারী নেতৃত্ব প্রদান করেছেন। তিনি দাবি করেছেন স্বপ্ল ব্যায়ে জীবন বাঁচাতে সক্ষম এই ওষুধ। 

লাদাখের উত্তপ্ত পরিস্থিতির মধ্যেই লক্ষ্যে অনড় ভারত, 'যুদ্ধের প্রস্তুতিতে' জোর সীমান্ত সড়ক নির্মাণে...

৬ বছরের শিশুকে ১০০ বার ধর্ষণের অভিযোগ, ২৭৫০ বছর সাজার 'অপেক্ষা'য় অভিযুক্ত ...

ডেক্সামেথাসোন স্টেরয়েড জাতীয় ওষুধ। গবেষকদের দাবি করোনা আক্রান্ত গুরুতর রোগীদের ওপর স্বল্প মাত্রায় এই ওষুধ প্রয়োগ করায় সাফল্য এসেছে। মার্টিনের সহকারী পিটার হারবি জানিয়েছেন এটি একমাত্র ওষুধ যা মৃত্যুর হার কমাতে সক্ষম। করোনা চিকিৎসা একটা বড় অগ্রগতি বলেও তিনি দাবি করেছেন। 

উত্তপ্ত লাদাখ সীমান্তে ভারত-চিন সেনাদের মধ্যে 'হাতাহাতি', নিহত ৩ ভারতীয় জওয়ান ...

বিশ্বে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমশই বাড়ছে। আক্রান্তের সংখ্যা ৮১ লক্ষের বেশি। এখনও পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ৪ লক্ষেরও বেশি মানুষের। করোনাভাইরাসের প্রভাব কমবেশি বিশ্বের প্রত্যেকটি দেশেই পড়েছে।