Asianet News BanglaAsianet News Bangla

ফের আলোচনায় প্রিন্স ফিলিপ ও দ্বিতীয় এলিজাবেথের সম্পর্কের সমীকরণ, রানির মৃত্যুর পর আকাশে উঠল জোড়া রামধনু !

রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে জনসাধারণের কৌতূহলের পারদ ছিল তুঙ্গে। ৮ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যায় বালমোরাল ক্যাসেলে রানির মারা যাওয়ার পর অনেকেই প্যালেসের ওপর জোড়া রামধনু দেখে অনেকেই সেগুলিকে প্রয়াত দম্পতির প্রতীকী বলে মনে করছেন।

the epic unlikely love story between queen elizabeth ii and prince philip ANBSS
Author
First Published Sep 9, 2022, 5:05 PM IST

সব সম্পর্কেই নানা রকম চড়াই-উতরাই থাকে। কিন্তু, বিখ্যাত এবং পরিচিত ব্যক্তিদের সম্পর্কের গ্রাফের ওঠানামা সম্পর্কে জানতে সাধারণ মানুষ সবসময়েই বিশেষ আগ্রহী থাকেন। আর যদি কোনোভাবে সেই  সম্পর্কটি জড়িয়ে থাকে ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের ব্যক্তিগত জীবনের সঙ্গে, তাহলে আর কথাই নেই। রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে যে জনসাধারণের কৌতূহলের পারদ তুঙ্গে থাকবে, সেটা বলাই বাহুল্য। তবে তাঁর দীর্ঘ ৭৩ বছরের বিবাহিত জীবন কোথাও রাজকুমার ফিলিপের সঙ্গে তাঁর সম্পর্কের টানাপোড়েনের গুজব থেকে সরে গিয়ে সম্পর্কের গভীরতাকেই বারবার স্বীকৃতি দিয়েছে ।  

তাই ৮ সেপ্টেম্বর সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায়  বালমোরাল ক্যাসেলে রানির মারা যাওয়ার কথা ঘোষণার পর, বাকিংহাম প্যালেসে জড়ো হাওয়া শোকস্তব্ধ জনতার অনেকেই প্যালেসের উপর জোড়া রামধনু দেখতে পান। তাদের অনেকেরই ধারণা, রামধনু দুটি রানি এবং তাঁর প্রয়াত স্বামী প্রিন্স ফিলিপের প্রতীকী। অবশেষে মধ্য গগনে তাঁরা আবার এক হলেন।  একসাথে চলার যে প্রতিশ্রুতি  তারা একে  অপরকে দিয়েছিলেন ১৯৪৭ সালে, তার  আবার পুনরাবৃত্তি ঘটল।  

দ্বিতীয় এলিজাবেথের প্রয়াণের পর শোকস্তব্ধ জনতা প্যালেস এর বাইরে গাইছিলেন  "গড সেভ দ্য কুইন"। সেই গানে যোগ দেন ৮ থেকে ৮০ সমস্ত বয়সিরা। ইংল্যান্ডবাসী তাঁদের  প্রিয় রানিকে শেষবারের মতো চিরবিদায় জানালেন বৃহস্পতিবার। শেষবেলায়  তাঁদের মুখে একটাই বার্তা," রানি যেখানেই থাকুন, তিনি যেন ভালো থাকেন।" 
 
৭৩ বছরের দাম্পত্যজীবনের ইতি হয়েছিল ৯ এপ্রিল ২০২১ সালে। ৯৯ বছর বয়সে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন রাজকুমার ফিলিপ। তবে এই দীর্ঘ দাম্পত্যের সবটাই কি সুন্দর গোলাপের মোড়া? নাহ্‌! সে পথে ছিল একাধিক কাঁটাও। কিন্তু কোথাও তাঁদের প্রেমকাহিনী ছাপিয়ে গিয়েছিল সব বিপত্তি।  

রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের মৃত্যুর পরেই অবিলম্বে তাঁর বড় ছেলে চার্লসকে ব্রিটেনের নতুন রাজা হিসাবে ঘোষণা করা হয়। রাজকীয় কর্মকর্তারা জানান যে তিনি রাজা তৃতীয় চার্লস নামে পরিচিত হবেন।

ব্রিটেনের নতুন রাজা চার্লস তৃতীয় , রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথকে  স্মরণ করে বলেন যে, রানি এলিজাবেথ দ্বিতীয় যে শুধুমাত্র  ইংল্যান্ডের সার্বভৌমত্বের রক্ষকই ছিলেন, তা-ই নয়, তিনি ছিলেন অত্যন্ত প্রিয় একজন মা। এই প্রসঙ্গেই চার্লস আরও বলেন : "আমি জানি তার শূন্যস্থান সারা দেশ, রাজ্য, কমনওয়েলথ এবং সারা বিশ্বের অসংখ্য মানুষ গভীরভাবে অনুভব করবে।"
রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের রাষ্ট্রীয় অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া দুই সপ্তাহেরও কম সময়ের মধ্যে ওয়েস্টমিনস্টার অ্যাবেতে অনুষ্ঠিত হবে বলে আশা করা হচ্ছে, তবে বাকিংহাম প্যালেস এখনও সঠিক দিনটি  নিশ্চিত করেনি।


আরও পড়ুন-
বাগুইআটির নাবালকদের খুনের পর অতি সতর্ক হয়ে পালাচ্ছিল সত্যেন্দ্র, কোন ভুল তাকে জড়িয়ে ফেলল পুলিশের ফাঁদে?
বাবার আদরের লিলিবেথ থেকে কীভাবে ব্রিটেনের রাজরানি হয়ে গেলেন দ্বিতীয় এলিজাবেথ?
রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের মৃত্যুর পর সিংহাসনে বদল, ক্ষমতায় এসে প্রথম বক্তৃতা রাখবেন রাজা তৃতীয় চার্লস

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios