পত্রলেখা চন্দ্র বসু, বর্ধমান-রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে ফের বিষোদগার হলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। লকডাউন থেকে শুরু করে পরীক্ষা  নিয়ে সরকারের ভূমিকার কড়া সমালোচনা করলেন দিলীপ ঘোষ। বিজেপি কর্মীদের মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগও করলেন তিনি। 

বুধবার, পূর্ব বর্ধমানের কেতুগ্রামে কর্মিসভায় যোগ দিয়েছিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি। সেখানে তৃণমূল থেকে বিজেপিতে যোগদান করেন ৬০০ জন। তাঁদের হাতে পতাকা তুলে দেন দিলীপ ঘোষ সহ অন্যান্য নেতারা।

আরও পড়ুন-'মোটা টাকা দিলেই পরীক্ষায় বেশি নম্বর', চাঞ্চল্যকর অভিযোগ কলেজের ৩ অধ্য়াপকের বিরুদ্ধে

এদিন সাংবাদিক সম্মেলনে দিলীপ ঘোষের অভিযোগ, '' কেন্দ্রের নিয়ম মেনে লকডাউন করছে না রাজ্য সরকার। শুধুমাত্র বিজেপির আটকানোর চেষ্টা চলছে। এতে তৃণমূলের ফল ভাল হবে না। পরীক্ষার আগের দিন লকডাউনে করে পরীক্ষার্থীদের সমস্যার মধ্য়ে ফেলে দিয়েছে সরকার''।   

আরও পড়ুন-পাহাড় থেকে জাতীয় সড়কে পড়ল পাথর, সেবক সহ সিকিমের সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ

দিলীপ ঘোষের আরও অভিযোগ, ''বিজেপিকে আটকাতে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানো হচ্ছে কর্মীদের। আমাদের কর্মীদের গাঁজা কেস দিয়ে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। বাড়ি থেকে নিয়ে নিয়ে গিয়ে কর্মীদের পিটিয়ে খুন করছে পুলিশ। এসব কী পুলিশের ভাল কাজ। বিজেপি এখনও কিছুই করেনি, যা করবে সাধারণ মানুষ করবে। সরকার যে দুর্নীতি করছে তার জন্য রাস্তায় নামবে সাধারণ মানুষ''।

আরও পড়ুন-'রেলগেট বন্ধ হলে ১৫ কিলোমিটার ঘুরপথ', প্রতিবাদে অবস্থান বিক্ষোভ মুরারইয়ের বাসিন্দাদের

পাশাপাশি, এদিন অনুব্রত মণ্ডলকে নিয়েও কটাক্ষ করেন দিলীপ ঘোষ। তিনি বলেন, ''নির্বাচনের আগে এসব লোক দেখানো। অন্য সময় সময় নেতাদের ফোন ধরেন না অনুব্রত''।