সামাজিক দূরত্ব তো দূরের কথা। গায়ে গায়ে গাদাগাদি করে চলছে ঝুঁকির পারাপার। লকডাউনে যেই দৃশ্য় দেখলে চমকে উঠবে যে কেউ। বর্ধমানের পূর্বস্থলী থেকে নদিয়ায় নদীপথে এভাবেই চলছে নিত্য় যাত্রা। যা দেখে করোনা সংক্রমণের আতঙ্ক বাড়বে রাজ্য়বাসীর।

এ হল বর্ধমানের পূর্বস্থলী থেকে নদিয়ায় নদীপথে গাদাগাদি করে যাত্রীদের পারাপারের ছবি। এই ছবি অবশ্যই করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা বাড়িয়েছে।  পূর্ব বর্ধমানের নদী তীরবর্তী এলাকা থেকে নদিয়ায় বেশকিছু অঞ্চলে যাতায়াতের একমাত্র মাধ্যম নদীপথ। কারোনার কারণে বিভিন্ন জেলার সীমানা করা হয়েছে। নদীপথে রয়েছে নজরদারি। তবে বেশকিছু ঘাট থেকে জরুরি প্রয়োজনে সকালে দু'ঘণ্টা ফেরি চলাচলের অনুমতি দিয়েছে প্রশাসন। 

কিন্তু জরুরি প্রয়োজনে অনুমতি দিলেও সেই সুযোগটি কাজে লাগাচ্ছে মানুষজন। পূর্ব বর্ধমানের পূর্বস্থলীর ডাম্পাল চর ঘাট থেকে নদীয়ার চর কুর্মি ঘাটে যাত্রীরা যাতায়াত করছে নৌকায় লকডাউনকে অমান্য করে, নিয়ম না মেনে।  এলাকার কিছু মানুষ প্রতিবাদ করলেও তা শোনেন না ঘাট মালিকরা। গুরুত্বপূর্ণ ঘাটে পুলিশের নজরদারি রয়েছে ঠিকই। তবে অপেক্ষাকৃত কম গুরুত্বপূর্ণ ঘাটগুলিতে  পুলিশের নজর এড়িয়ে, নিয়ম অমান্য করে তারা যাতায়াত করছেন মাস্ক ছাড়াই।  পূর্বস্থলীর  ২ নম্বর ব্লকের বিডিও সৌমিক বাকচি জানিয়েছেন বিষয়টি শোনার পরই ঘাট মালিক কে বারন করা হয়েছে।