গোটা দেশ জুড়ে অক্সিজেনের সংকটের  যে ভয়াবহ ছবি উঠে আসছে, তা এক কথায় বলতে গেলে ঘুম কাড়ছে বিশ্বের বিভিন্ন মহলের। ভারতে লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে সংক্রমণের মাত্রা। তার ওপর নেই পর্যান্ত পরিমাণে ভ্যাকসিন, অক্সিজেন ও ওষুধ। আর তার জেরেই প্রাণ হারাচ্ছেন হু মানুষ। এবার সেই একই ছবি উঠে এলো তিরুপতির শ্রী ভেঙ্কটেশ্বর রামনারায়ণ সরকারি হাসপাতাল থেকে। মাত্র ৫ মিনিট ছিল না অক্সিজেন। 

আরও পড়ুন- মৃত্যুর সংখ্যা ১৩৪, সংক্রমণ প্রায় ২০ হাজার, কলকাতা, দঃ ২৪ পরগনা, হাওড়া, বাংলায় কোন কোন এলাকা ঘিরে ভ

আর এই পাঁচ মিনিটই কাড়ল ১১ করোনা রোগীর প্রাণ। অক্সিজেনের অভাবে কীভাবে করোনা রোগীরা প্রতিটা মুহূর্তে প্রাণ হারাচ্ছেন, তার ছবি প্রতিটা মুহূর্তে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে উঠে আসছে। কেউ জোগার করতে পারছে না একটা সিলিন্ডার, কেউ আবার পাচ্ছেন না অক্সিজেন, হাসপাতালেও অক্সিজেন সংকটের ছবি ফুঁটে উঠতে দেখা যাচ্ছে। তিরুপতির এই হাসপাতাল সূত্রে খবর, পাঁচ মিনিট অক্সিজেন পেতে দেরি হয়েছিল। সরবরাহে কিছু সমস্যা দেখা দেয়। এরপরই ঘটে বিপত্তি। 

আইসিইউ থেকে থাকা রোগীরা হঠাৎই অক্সিজেন না পেয়ে সমস্যার সন্মুখীন হন। পরিস্থিতি সামাল দিতে ছুঁটে এসেছিলেন ৩০ জন চিকিৎসকের একটি টিম। য়থা সাধ্য তাঁরা চেষ্টা করেছিলেন রোগীদের সেবা করতে, সাপোর্ট দিতে, কিন্তু সেই চেষ্টা ব্যার্থ করেই ১১ জন রোগী প্রাণ হারান। ঘটনার পরই  হাসপাতাল চত্বরে শুরু হয় বচসা, পরিবারের লোকেরা অভিযোগ তোলেন হাসপাতালের পরিষেবা ব্যবস্থা নিয়ে। তবে বর্তমানে অক্সিজেন সরবরাহ স্বাভাবিক রয়েছে বলেই খবর হাসপাতাল সূত্রে।