প্রধানমন্ত্রী 'রাত ৯টায় ৯ মিনিট' ইভেন্টে ভারতবাসীর ঘরের আলো-টালো নিভিয়ে  প্রদীপ বা মোম জ্বালার কথা ছিল। কিন্তু, হুজুগে দেশে সেই সঙ্গে বিস্তর বাজি পুড়েছে, সেই বাজির আগুনে কোথাও কোথাও ঘটেছে অগ্নিকাণ্ড, সামাজিক দূরত্বের নিষেধ ভুলে বাড়ির ছাদে বসেছে পার্টি, রাস্তায় নেমে মোমবাতি মিছিলও হয়েছে। তবে সবাইকে ছাপিয়ে গিয়েছেন উত্তরপ্রদেশের বলরামপুর জেলার বিজেপির মহিলা মোর্চার সভানেত্রী মঞ্জু তিওয়ারি। একটি পিস্তল থেকে শূন্যে গুলি ছুঁড়ে তিনি 'রাত ৯টায় ৯ মিনিট' ইভেন্ট পালন করেছেন। যার জন্য তাঁর নামে মামলা করেছে পুলিশ।

কেন হঠাৎ এমন করলেন নেত্রী? সংবাদ সংস্থা এএনআই-কে দেওয়া এক সাক্ষাতকারে অদ্ভূত ব্যাখ্যা দিয়েছেন গেরুয়া শিবিরের এই নেত্রী। তাঁর দাবি ওই সময় পুরো শহর মোমবাতি এবং মাটির প্রদীপে আলোকিত হয়ে উঠেছিল। বাচ্চারা বাজি ফাটাচ্ছিল। আর তাতেই তাঁর মনে হয়েছিল যেন দীপাবলির রাত নেমে এসেছে। তাই মনে খুব আনন্দ হয়েছিল। সেই আনন্দেই তিনি শূন্যে গুলি ছোড়েন।

বস্তুত, তিনি নিজেই তাঁর সেই শূন্যে গুলি ছোড়ার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছিলেন। সেই সঙ্গে ক্যাপশনে লেখেন, 'প্রদীপ জ্বালানোর পর করোনা তাড়াচ্ছি...'। এরপরই সেই ভিডিও ভাইরাল হয়ে যায়। অনেকেই শাসক দলের নেত্রীর ওই দায়িত্বজ্ঞানহীন আচরণের সমালোচনা করেন। পুলিশের কাছে সেই ভিডিও পৌঁছলে, এদিন সকালে কোতোয়ালি থানার পুলিশ তাঁর বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে মামলা করেছে। তারপরই বিজেপি তাঁকে মহিলা মোর্চার সভানেত্রীর পদ থেকে সরিয়ে দেয়। মঞ্জু তিওয়ারিও তাঁর ভিডিও পোস্টটি সরিয়ে দেন।

'করোনাভাইরাস আসলে সরকারের চক্রান্ত, বিস্ফোরক পোস্ট করে শ্রীঘরে গেল যুবক

পলাতক মহিলার দেওয়া ঠিকানাও ভুয়ো, করোনা-জেহাদির ভয়ে সন্ত্রস্ত গোটা শহর

করোনা নিয়ে কেমন কাজ করছে বিজেপি, ৫ পয়েন্টের মার্কশিট তৈরি করে দিলেন মোদী

তবে ততক্ষণে, যা ক্ষতি হওয়ার হয়ে গিয়েছে। ভিডিওটি রিপোস্ট করে উত্তরপ্রদেশের কংগ্রেস। সঙ্গে লেখে, 'আইন ভাঙায় বিজেপি নেতা-নেত্রীরা সবসময়ই এগিয়ে। প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন প্রদীপ জ্বালতে, আর বিজেপি নেত্রী প্রকাশ্যে গুলি ছুঁড়ে সেই ভিডিও ফেসবুকে পোস্ট করলেন। মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ কি এঁর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবেন'?

তবে চাপের মুখে মঞ্জু তিওয়ারি মেনে নিয়েছেন যে তিনি ভুল করেছেন। এর জন্য তিনি দলীয় নেতৃত্বের কাছে ক্ষমাও চেয়েছেন। তবে তাঁর বাড়িতে বন্দুক কোথা থেকে এল সেই প্রশ্নটা থেকেই যাচ্ছে। এমনিতে নিয়মিত তাঁকে এক বিশেষ সম্প্রদায়ের বিরুদ্ধে ভুয়ো ভিডিও পোস্ট করতে দেখা যায়। কিন্তু, এই ঘটনার পরও কি তিনি পার পেয়ে যাবেন?