নির্ধারিত সময়ই আসবে বর্ষা।  প্রায় গোটা দেশেই স্বাভাবিক বর্ষা হবে। জানিয়েছে ভারতেরআবহাওয়া অধিদফতর। একই সঙ্গে জানিয়েছে কেরলে নির্দিষ্ট সময় অর্থাৎ পয়লা জুনই বর্ষা আসতে পারে। 

করোনাভাইরাসের সংক্রমণে ত্রস্ত গোটা দেশ। এই অবস্থায় অনেকেই মনে করছেন প্রবল বৃষ্টি নষ্ট হয়ে যেতে পারে জীবানু। তাই অনেকেই  বর্ষার প্রতীক্ষায় দিন গুনছে। এই অবস্থায় আবহাওয়া দফতর জানিয়েছে গোটা দেশেই স্বাভাবিক বৃষ্টি হবে। গোটা দেশের মোট বৃষ্টির ৭০ শতাংশই হয় মৌসুমী বায়ুর প্রভাবে। এবারই তাই হবে। 
  করোনাভাইরাসের সংক্রমণে কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে দেশ। তারই মধ্যে নির্ধারিত সময়ে বর্ষা আসার খবর অনেকটাই স্বস্তি দিয়েছে কৃষকদের মধ্যে। জুন থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত প্রায় একশো শতাংশ বৃষ্টি হবে বলেই মনে করেন আবহাওয়াবিদরা। 

আরও পড়ুনঃ 'চলো ঘর কি ওর' সোশ্যাল মিডিয়ায় এই প্রচারের কারণেই মুম্বইতে অভিবাসী শ্রমিকদের হুড়োহুড়ি, গ্রেফতার অভ...
আরও পড়ুনঃ লকডাউনের মরশুমে স্বস্তিতে প্রকৃতি, এবার উত্তরাখণ্ডের জঙ্গলে দেখা মিলল বিরল প্রজাতির তুষার চিতার ...
আরও পড়ুনঃ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার আর্থিক অনুদানের তালিকায় দ্বিতীয় স্থানে বিল গেটস, ভারত পাকিস্তানের থেকেও পিছি...
তবে প্রথম দিকে আসন্ন বর্যার ছবি কিছুটা আশঙ্কাজনক ছিল। প্রথম দফায় পাওয়া তথ্য অনুযায়ী বৃষ্টির পরিমান ৪১ শতাংশ হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু পরবর্তীকালে আরও বেশি বৃষ্টি হবে বলেই মনে করছেন তাঁরা।  প্রশান্ত মহাসাগরের এলনিনো সক্রিয়া থাকলেও তা ভারতে গ্রীষ্ণ ও বর্ষার জন্য তেমন বাধা সৃষ্টি করবে না বলেই আশা প্রকাশ করেছেন আবহাওয়া বিজ্ঞানীরা। তবে মরশুমের দ্বিতীয় পর্যায়ে এল নিনো নিজের অবস্থান আরও উন্নত করতে পারে।