মিঠু সাহা, শিলিগুড়ি: এভাবে আর কতদিন! করোনা আতঙ্কের মাঝেই এবার অভাবের তাড়নায় স্টেশন চত্বরে গায়ে আগুন দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করলেন এক চা বিক্রেতা। গাড়ি চালকদের তৎপরতায় প্রাণে বেঁচে গিয়েছেন তিনি। মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে শিলিগুড়ির এনজেপি স্টেশনে। 

আরও পড়ুন: করোনার থাবায় বন্ধ স্কুলে সমাজ বিরোধীদের আড্ডা, চাঞ্চল্যকর ছবি দুর্গাপুরে

করোনা আতঙ্ক থেকে মুক্তি মিলবে কবে! সংক্রমণ ঠেকাতে প্রথম দফায় লকডাউন চলেছে টানা তিনমাস। মাঝে কিছুটা ছাড় দিতেই ঘটে বিপত্তি। আনলক পর্বে করোনাভাইরাস ছড়িয়েছে আরও। পরিস্থিতি মোকাবিলায় আপাতত সপ্তাহ দু'দিন করে লকডাউন চলছে রাজ্যে।  কিন্তু ঘটনা হল, বাকি দিনগুলিতে রাস্তায় বাস-ট্যাক্সি বা প্রাইভেট গাড়ি যদিবা চলছে, ট্রেন পরিষেবা কিন্তু এখনও বন্ধ। তবে থেকে ফের চলবে ট্রেন? জানা নেই কারও। 

আরও পড়ুন: সানি-নেহার পর এবার মেধাতালিকায় কার্টুন চরিত্র, ফিজিক্স নিয়ে পড়তে চায় সিনচ্যান, ডরেমন

জানা গিয়েছে, শিলিগুড়ির এনজেপি স্টেশনে চা বিক্রি করতেন রাজা নামে এক ব্যক্তি। সেই রোজগারেই সংসার চলত। কিন্তু লকডাউনের জেরে এখন ট্রেন বন্ধ। ফলে স্টেশনে আর যাত্রীদের ভিড়ও নেই। আশেপাশে যাঁরা থাকেন, তাঁদের অনেকেই আবার ভয়ে চা বা অন্য কোনও খাবার কিনে চান না। তাহলে সংসার চলবে কী করে! এনজেপি স্টেশনে চত্বরে রাস্তায় সোমবার সকালে গায়ে কেরোসিন তেল ঢেলে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন রাজা। তবে গাড়ি চালকদের তৎপরতায় অঘটন ঘটেনি। অগ্নিদগ্ধ ওই চা বিক্রেতা ভর্তি করা হয়েছে উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে।