শ্রীলঙ্কার বনাম দক্ষিণ আফ্রিকা ম্যাচটি একেবারেই একপেশে হল। দর্শকদের জন্য বিনোদনের উপকরণ কমই ছিল। তবু তারমধ্যেও এক অদ্ভুত দৃশ্য দেখা গেল। শ্রীলঙ্কা ইনিংসের ৪৮তম ওভারে দেখা গেল আম্পায়ার, দুই শ্রীলঙ্কান ব্যাটসম্যান, বোলার, ফিল্ডাররা যে যেখানে ছিলেন হঠাৎ ধপাধপ মাটিতে উপুড় হয়ে শুয়ে পড়লেন।

হল টা কী? ক্রিকেট খেলতে খেলতে হঠাৎ রিয়েল লাইফ পাবজি খেলা হচ্ছে, নাকি সবাই মিলে যোগাভ্য়াস শুরু করে দিলেন?

আসল কারণ হল চেস্টার লি স্ট্রিটের রিভারসাইড গ্রাউন্ডে বিশ্বকাপের প্রথম খেলায় হানা দিয়েছিল একঝাঁক মৌমাছি। আর তাদের হুলের থেকে বাঁচতেই সকলে চোখমুখ ঢেকে উপুর হয়ে শুয়ে পড়েন। বেশ খানিকক্ষণ ওইভাবে চলার পর মাঠ ছাড়ে মৌমাছিরা।

আরও পড়ুন -  আমলা ডুপ্লেসিস-এর রেকর্ড, জাত চেনালো দক্ষিণ আফ্রিকা! তবে বড় দেরি হয়ে গেল

আরও পড়ুন - হার্দিককে সেরা বানাতে চান - ভারতে কি কাজ খুঁজছেন প্রাক্তন পাক অলরাউন্ডার

আরও পড়ুন - বোলিং-এর সচিন, তারপরেও বারবার বঞ্চিত শামি - ক্ষুব্ধ ভক্তকূল

ততক্ষণে গোটা গ্যালারি হেসে গড়িয়ে পড়ছে। একর পর এক নামজাদা আন্তর্জাতিক ক্রিকেট তারকাকে ওই ভাবে অসহায়ের মতো পড়ে থাকতে দেখলে হাসি আসারই কথা। তবে সেই সঙ্গে এটাও মনে করিয়ে দিয়ে গেল, প্রকৃতির সামনে সব মানুষই কত অসহায়।

এর আগে বৃষ্টির জেরে বেশ কিছু খেলা বাতিল হয়েছে। ওভার নষ্ট হয়েছে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচেও। এবার সৌমাছির হানায় ওবার নষ্ট না হলেও খেলা থেকে বেশ কিছু সময় কাটা গেল। অবশ্য গ্যালারির প্রতিক্রিয়া ধরলে ওই সময়টুকুতেই নিষ্প্রাণ খেলায় কিছুটা প্রাণ এসেছিল।

তবে মজার ব্যাপার হল ক্রিকেট মাঠে এই শ্রীলঙ্কা ও দক্ষিণ আফ্রিকা মুখোমুখি হলেই যেন মৌমাছিদের মনে ক্রিকেট দেখার সাধ জাগে। ২০১৭ সালে দক্ষিণ আফ্রিকার ওয়ান্ডার্সে এই দুই দলের মধ্যে হওয়া একটি একদিনের ম্যাচেও একইভাবে মৌমাছির হানায় বেশ কিছুক্ষণ খেলা বন্ধ রাখে হয়েছিল। সেইবারও একইভাবে সবাই মাঠে শুয়ে পড়েছিলেন। আইসিসি সোশ্যাল মিডিয়ায় এই দুই ম্যাচের ছবি পাশাপাশি পোস্ট করেছে।