নাটকীয় টি টোয়েন্টি ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকাকে দুই রানে হারালো ইংল্যান্ড। শুক্রবার ম্যাচ জিতে টি টোয়েন্টি সিরিজে সমতা ফেরালো তারা। তৃতীয় টি টোয়েন্টি ম্যাচে ফয়সালা হবে সিরিজ কার দখলে থাকবে। 

প্রথম ম্যাচে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর এক রানে হারতে হয়েছিল ইংল্যান্ডকে। দক্ষিণ আফ্রিকার ১৭৭ রান তাড়া করতে নেমে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৭৬ তুলতে পেরেছিল তারা। দ্বিতীয় টি টোয়েন্টি ম্যাচে তার চেয়েও বেশি নাটকীয় অবস্থা তৈরি হয়। প্রথমে ব্যাট করে সাত উইকেট খুইয়ে ২০৪ রান তোলে ইংল্যান্ড। ৩৯ রানের একটি ঝোড়ো ইনিংস খেলেন অল-রাউন্ডার মঈন আলি। জবাবে ব্যাট করতে নেমে ২০২ রান তুলতে পারে দক্ষিণ আফ্রিকা। 

সাবলীল ভাবে সুন্দর ছন্দে ইংল্যান্ডের রান  তাড়া করছিল সাউথ আফ্রিকা। ৩৫ বলে ৬৫ রান করেন প্রোটিয়া অধিনায়ক কুইন্টন ডে কক। দ্বিতীয় ইনিংসের  ১৭ তম ওভার পর্যন্ত ইংল্যান্ডের ইনিংসের সঙ্গে সমান তাল মিলিয়ে রান তুলছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। 

এক সময় ম্যাচ জিততে শেষ পাঁচ বলে ১৫ দরকার ছিল প্রোটিয়াদের। বল করছিলেন কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে খেলে যাওয়া টম কারান। দক্ষিণ আফ্রিকার ডোয়াইন প্রিটোরিয়াস ওভারের দ্বিতীয় ও তৃতীয় বলে একটি চার আর একটি ছয় মারেন কারানকে। ফলে শেষ তিন বলে জয়ের জন্য সাউথ আফ্রিকার প্রয়োজন ছিল মাত্র ৫। পরের বলের পর সেটা কমে দাঁড়ায় দু’বলে ৩ রান। এরপর কারানের বলে এলবিডব্লিউ হন প্রিটোরিয়াস। আম্পায়ারের সিদ্ধান্ত কে চ্যালেঞ্জ করে ডিআরএস নেন প্রিটোরিয়াস। কিন্তু সেখানেও দেখা যায় আউটের সিদ্ধান্ত সঠিক। ফলে। শেষ বলে দেশের হয়ে প্রথম ম্যাচ খেলতে নামা ফোর্টেন ফাইন লেগে আদিল রাশিদকে ক্যাচ দিয়ে আউট হন। ফলে ইংল্যান্ডর রানের থেকে দুই রান দূরেই থামতে হয় দক্ষিণ আফ্রিকাকে।