২২ গজে বল হাতে আর দেখা যাবে না তাঁকে। সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসর নিলেন ২০০৭ সালে টি-২০ বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য ইরফান পাঠান। ১৭ বছরের ক্রিকেট জীবনে ইতি টানলেন প্রাক্তন টিম ইন্ডিয়ার অভিজ্ঞ অল-রাউন্ডার। মুম্বইয়ে একটি ক্রিকেটীয় ইভেন্টে শনিবার সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসর নেওয়ার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করলেন তিনি।

ইরফানের ক্রিকেট কেরিয়ার বলছে, দেশের হয়ে ২৯টি টেস্ট খেলেছেন তিনি। ওয়ানডে খেলেছেন ১২০টা। টিম ইন্ডিয়ার হয়ে টি-২০ খেলেছেন মোট ২৪ টা।  ২০০৭ সালে  আট বছর আগে ২০১২ টি-২০ ক্রিকেট বিশ্বকাপে শেষবার জাতীয় দলের জার্সিয়ে মাঠে নেমেছিলেন তিনি। দীর্ঘ আট বছর জাতীয় দলের জার্সিতে আর দেখা যায়নি তাঁকে। এক সময় ফার্স্ট স্পেলে বল করার জন্য় তাঁর হাতে নতুন বল তুলে দিয়েছেন তৎকালীন টিম ইন্ডিয়ার অধিনায়ক সৌরভ গঙ্গোপাধ্য়ায়। ভারতীয় বোলার হিসেবে টেস্ট ক্রিকেটে হ্যাটট্রিকধারী ইরফান। কিন্তু বহুদিন  ধরে আর ক্রিকেটে সেভাবে দেখা যায়নি তাঁকে।

এক সময় বাঁ-হাতি সিম বোলিংয়ের জন্য তাঁকে পাক পেসার ওয়াসিম আক্রমণের সঙ্গে তুলনা করত ক্রিকেট বিশ্ব। লেফট আর্ম পেসার হিসাবে তাঁর ইনকামিং ইনসুইঙ্গার ভয় পেত না এমন ব্যাটসম্য়ান খুব কম ছিল। তবে ঘরোয়া ক্রিকেট খেলে জাতীয় দলের প্রত্যাবর্তনের চেষ্টা করলেও জাতীয় দলের দরজা আর খোলেনি ইরফানের জন্য। শেষ অবধি শনিবার অপেক্ষা দীর্ঘায়িত না করে কেরিয়ারে যবনিকা টানার সিদ্ধান্তটা নিয়েই ফেললেন বছর পঁয়ত্রিশের ইরফান।