নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট দলের জন্য এল খারাপ খবর। করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ সন্দেহে আইসোলেশনে রাখা হলো কিউয়ি পেসার লকি ফার্গুসনকে। শুক্রবার সিডনিতে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম ওয়ান-ডে ম্যাচ খেলার পরেই সর্দি-কাশি তে ভুগতে দেখা যায় তাকে। স্বাস্থ্য সংক্রান্ত নিয়ম অনুযায়ী হোটেলেই আপাতত আইসোলেশনে রাখা হচ্ছে তাকে। একদিনের জন্য তাকে হোটেলে রেখে টেস্ট করতে পাঠানো হবে। নিউজিল্যান্ড শিবিরের তরফ থেকে জানানো হয়েছে ফার্গুসনের স্বাস্থ্য পরীক্ষার পরই জানানো হবে কবে তিনি দলে যোগ দেবেন। 

এর আগে অজি পেস বোলার কেন রিচার্ডসন কেও পরীক্ষা করা হয়েছিল করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের সন্দেহে। কিন্তু সেই পরীক্ষার ফল যা এসেছে তাতে কোথাও রিচার্ডসনের করোনা সংক্রমণের লক্ষণ দেখা যায়নি। ফলে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেছে অজি শিবির। ডান-হাতি অজি পেসার দক্ষিণ আফ্রিকা ট্যুর থেকে ফেরার পর গলায় সর্দি-কাশি নিয়ে ভুগছিলেন। তৎক্ষণাৎ তাকে টেস্ট করতে পাঠানো হয়। সেই টেস্টের ফলাফল আসার পর তিনি সিডনিতে অজি শিবিরে যোগ দিয়েছিলেন। 

প্রথম ওয়ান ডে ম্যাচে জয় পেয়েছে অস্ট্রেলিয়াই। ফিঞ্চ, ওয়ার্নার এবং লাবুশানে-র ব্যাটে ভর করে আড়াইশো রানের গন্ডি পেরিয়েছিলো অস্ট্রেলিয়া। জবাবে ব্যাট করতে নেমে দুশো রানেরও কমে অল-আউট হয়ে যায় তারা। তিন উইকেট নেন অজি অলরাউন্ডার মিচেল মার্শ, দুই উইকেট পেসার জস হ্যাজেলউডের। নিউজিল্যান্ডের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে সর্বোচ্চ রান করেছেন ওপেনার মার্টিন গাপ্টিল। খানিকটা লড়াই করেছেন টম ল্যাথামও।