হ্যামিল্টনে তৃতীয় টি২০আই-তে আরও এক রোমাঞ্চকর জয়ের মধ্য দিয়ে নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে পাঁচ ম্যাচের সিরিজের দখল নিল টিম ইন্ডিয়া। বিফলে গেল কিউই অধিনায়ক কেইন উইলিয়ামসনের ৯৫ রানের দুর্দান্ত ইনিংস। চূড়ান্ত ওভারে মাত্র ৯ হাতে নিয়ে খেলা ঘুরিয়ে দিয়েছিলেন বাংলার পেসার মহম্মদ শামি। আর তারপর খেলা সুপার ওভারে গড়ালে ভারত-কে জয় এনে দিলেন সহঅধিনায়ক রোহিত শর্মা।

এদিন প্রথমে ব্য়াট করে ভারত রোহিত শর্মার ৪০ বলে ৬০, কেএল রাহুলের ১৯ বলে ২৭ ও বিরাট কোহলির ২৭ বলে ৩৮ রানের সৌজন্যে ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৭৯ রান করেছিল। ১৯ ওভারে নিউজিল্যান্ড গাপ্টিলের ২১ বলে ৩১ ও কেইন উইলিয়ামসনের দুর্দান্ত ৪৮ বলে ৯৫ রানের ইনিংসের সৌজন্যে ১৭১ রানে পৌঁছেছিল। শেষ ওভারে মাত্র ৯ রান দরকার ছিল জয়ের জন্য।

আরও পড়ুন - কিংবদন্তিদের তালিকায় 'হিটম্যান', ছক্কা মেরেই টপকালেন এভারেস্ট

এই অবস্থায় বিরাট বল তুলে দেন মহম্মদ শামির হাতে। প্রথম বলেই উইলিয়ামসন একটি ছয় মারেন। ফলে ৫ বলে জয়ের লক্ষ্য দাঁড়ায় মাত্র ৩। সেখান থেকেই স্বপ্নের পাঁচটি বল করেন শামি। প্রথমে উইলিয়ামসনকে আউট উইকেটের পিছনে ক্যাচ দিতে বাধ্য করেন, তারপর টিম সেফার্টের বিপক্ষে দুটি ডট বল দেন, আর শেষ বলে ছিটকে দেন রস টেলরের উইকেট। নিউজিল্যান্ডও থামে ১৭৯ রানে।

প্রথমে ব্যাট করে উইলিয়ামসনের দাপটে নিউজিল্যান্ড ১৭ রান তোলে। সুপার ওভারেও জসপ্রিত বুমরা এদিন ছন্দ খুঁজে পাননি। উইলিয়ামসনের হাতে পরপর একটি ছয় ও একটি চারটি খান, তারপর আবার মার্টিন গাপ্টিল শেষ বলে একটি চার মারেন। এই রান তাড়া করতে নেমে ভারতের রোহিত শর্মা এবং কেএল রাহুল প্রথম চার বলে মাত্র ৮ রান তুলতে পেরেছিল। কিন্তু স্ট্রাইক ছিল হিটম্যানের হাতে। তাই আশাও ছিল। শেষ দুই বলে রোহিত দুটি ছক্কা মেরে খেলা শেষ করে দেন।