প্রথম টেস্টে পৃথ্বি শ-র পরপর দুই ইনিংসে ব্যর্থতার পরই কার্যত নিশ্চিৎ হয়ে গিয়েছিল বক্সিং ডে টেস্টে অভিষেক হতে চলেছে শুভমান গিলের। প্রত্যাশা মতই প্রথম এগারোতে মেলবোর্নে জায়গা করে নেন পঞ্জাব তনয়। শুভমান গিল ভারতের তরুণ ক্রিকেটারদের মধ্যে অন্যতনম প্রতিশ্রুতিমান ক্রিকেটার হলেও, অস্ট্রেলিয়ার আগুনে পেস অ্যাটাকের সামনে কতটা সফল হবেন তা নিয়ে একটা সংশয় রয়েই গিয়েছিল। কতটা লড়াই দিতে পারেন শুভমান তা দেখার অপেক্ষায় ছিলেন সকলেই।

অভিষেক টেস্টে বড় রান না পেলেও, শুভমানের ৪৫ রানের ইনিংস প্রশংসা কুড়িয়েছে সকলের। অর্ধশতরান থেকে মাত্র ৫ রান দূরে থামতে হলেও, ৮টি চারের সৌজন্যে ৬৫ বলে ৪৫ রানের অকুতোভয়  শুভমান গিলের ইনিংস প্রশংসার দাবি রাখে। এমনকী ভারতীয় তরুণ ব্যাটসম্যানের প্রশংসা করেছেন অস্ট্রেলিয়ার প্রাক্তন কিংবদন্তী পেসার গ্লে ম্যাকগ্রাও। তিনি বলেছেন,'গিলকে যখন একদিনের ক্রিকেটে প্রথম দেখি মনে হয়েছিল ওর টেকনিক ভাল। মনে হয়েছিল শুভমনের জন্মই হয়েছে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের জন্য। কামিন্স, স্টার্কদের বিরুদ্ধে টেস্টে শুরু করা বেশ কঠিন। লাবুশানে একটা ক্যাচ ফেলে তা ছাড়া গিল একদম নিখুঁত ছিল।'

ত বে অভিষেকে অর্ধশতরান না করতে পারার এক যন্ত্রণা রয়েছে শুভমানের অন্দরে। কেকেআরে তারল সতীর্থ প্যাট কামিন্সের বলে আউট হওয়ার পর বেশ হতাশ দেখায় গিলকে। তবে মেলবোর্নে দ্বিতীয় টেস্টে দ্বিতীয় দিনের শেষে চালকের আসনে ভারত। অস্ট্রেলিয়ার থেকে ৮২ রান এগিয়ে টিন ইন্ডিয়া। হাতে ৫ উইকেট। সেঞ্চুরি করে নট আউট রয়েছে অধিনায়ক রাহানে ও ৪০ রানে অপরাজিত জাদেজা। দলের জয় নিশ্চিৎ করতে দ্বিতীয় ইনিংসে বড় ইনিংস খেলার অপেক্ষায় শুভমান।