Asianet News BanglaAsianet News Bangla

T20 WC 2021, ENG vs AUS - দুর্ধর্ষ ইংরেজ বোলিং-এর সামনে অল্প রানে গুটিয়ে গেল অস্ট্রেলিয়াও


টি২০ বিশ্বকাপ ২০২১ (T20 World Cup 2021)-এর সুপার ১২ পর্বে অস্ট্রেলিয়াকেও র (Australia) অল্প রানে বেঁধে রাখল ইংল্যান্ড (England)। 

T20 World Cup 2021, ENG vs AUS - England restrict Australia at 125 in Dubai ALB
Author
Kolkata, First Published Oct 30, 2021, 9:26 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

যেন একই ফর্মুলায় ফেলা। এর আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ম্যাচে দেখা গিয়েছে, তারপর বাংলাদেশ ম্যাচেও দেখা গিয়েছে। শনিবার, দুবাই আন্তর্জাতিক স্টেডিয়ামে টি২০ বিশ্বকাপ ২০২১ (T20 World Cup 2021)-এর সুপার ১২ পর্বে অস্ট্রেলিয়ার (Australia)কেও একই ফর্মুলায় অল্প রানে বেঁধে ফেলল ইংরেজ বোলাররা। ঘাস থাকা পিচে ইংরেজ বোলাররা শুরুতেই ৩ উইকেট ফেলে দিয়েছিলেন। যে ধাক্কা গোটা ইনিংসে সামলাতে পারল না অজিরা। ফিঞ্চ একদিক আগলে থাকলেন বলেই অন্তত ২০ ওভারে ১৫ রান তুলল অস্ট্রেলিয়া। একেবারে শেষ বলে অলআউট হলেন ফিঞ্চরা। 

এদিন পাওয়ার প্লের মধ্যেই অস্ট্রেলিয়ার টপ অর্ডারকে প্যাভিলিয়নে ফেরত পাঠিয়ে দিয়েছিলেন ক্রিস ওকস এবং ক্রিস ডর্ডন। ওকস ফেরান ওয়ার্নার (১) এবং ম্যাক্সওয়েল (৬)-কে। অন্যদিকে ডর্ডন আউট করেন নির্ভরযোগ্য স্টিভেন স্মিথকে (১)। ৪ ওভারে মাত্র ১৫ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়েছিল ক্যাঙারুর দেশ। পাওয়ার প্লের ওভারে ওঠে মাত্র ২১ রান। সপ্তম ওভারের প্রথম বলেই আবার আদিল রশিদের বলে কোনও রান না করেই প্যাভিলিয়নে ফেরেন, আগের ম্যাচেই দারুণ খেলা মার্কাস স্টইনিস। 

সেখান থেকে প্রথমে ম্যাথু ওয়েড (১৮ বলে ১৮) এবং পরে এদিনের ম্যাচে মিচেল মার্শের বদলে দলে আসা অ্যাশটন আগার (২০ বলে ২০)-কে সঙ্গে নিয়ে ইনিংস গড়ার দিকে মন দিয়েছিলেন অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ (৪৯ বলে ৪৪)। তবে ১২তম ওভারে ওয়েডকে ফেরান লিভিংস্টোন এবং ১৮তম ওভারে টাইমাল মিলসের বলে আউট হয়ে যান আগার। ১৯তম ওভারের প্রথম বলেই ফিঞ্চকেও আউট করে দেন ক্রিস জর্ডন। আগার আউট হওয়ার পর নেমেই পরপর দুটি ছয় মেরেছিলেন প্যাট কামিন্স (১২)। কিন্তু ফি়ঞ্চ আউট হওয়ার পরের বলেই তাঁকেও প্যাভিলিয়নে ফেরান জর্ডন। শেষ দিকে মিচেল স্টার্কও ১টি চার ও ১টি ছয় মারলেন। তাতেই ১২০ রানের গণ্ডি পার করে অজি ইনিংস।

ইংরেজ বোলারদের মধ্যে পরিসংখ্যানের দিক থেকে সেরা অবশ্যই ক্রিস জর্ডন। ৪ ওভারে মাত্র ১৭ রান দিয়ে ৩ উইকেট নিয়েছেন তিনি। তবে ম্যাচে প্রভাবের দিক থেকে দেখলে বলতে হবে ওকসই ছলেন সেরা। ২৩ রান দিয়ে ২ উইকেট নিয়েছেন। পিছিয়ে নেই অলরাউন্ডার লিভিংস্টোনও। ১টি উইকেট নিয়েছেন, কিন্তু ৪ ওভারে দিয়েছেন মাত্র ১৫ রান। আদিল রশিদও ১৯ রান দিয়ে ১ উইকেট নিয়েছেন। ২ উইকেট নিলেও বেশ বেশি রান দিয়েছেন একমাত্র টাইমাল মিলস। তাঁর ৪ ওভার থেকে এসেছে ৪৫ রান। সব মিলিয়ে এদিন দলগতভাবেই ভাল বল করেছে ইংল্যান্ড। 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios