বিশ্ব জুড়ে ক্রমশ বাড়ছে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত ও মৃতের সংখ্যা। কোনওভাবেই বাগে আনা যাচ্ছে বিশ্ব মহামারী ভাইরাসকে। ক্রীড়া ক্ষেত্রেও নিজের প্রকোপ বজায় রেখেছে কোভিড ১৯। একাধিক স্বাস্থ্যবিধি মেনে ক্রিকেট, ফুটবল ফিরলেও, কোনও না কোনওভাবে প্রাণ পিপাসু ভাইরাসে আক্রান্ত হচ্ছেন ক্রীড়া ব্যক্তিত্বরা। এবার করোনা ভাইরাসের থাবা দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেটে। এর আগে প্রোটিয়া বোর্ডের কর্মীদের করোনা আক্রান্তের খবর প্রকাশ্যে এসেছিল। এবার আক্রান্ত হলেন দক্ষিণ আফ্রিকা মহিলা দলের ক্রিকেটার ও সাপোর্ট স্টাফ। যেই খবর প্রকাশ্যে আসার পরই আতঙ্ক করেছে গোটা দলকে।

আরও পড়ুনঃইস্টবেঙ্গলের আইএসএল খেলা নিয়ে বাড়ল সংশয়, এফএসডিএলের ভাবনায় রাতের ঘুম উড়েছে ক্লাব কর্তাদের

সামনেই ইংল্যান্ড সফর রয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকার মহিলা ক্রিকেট দলের। সেই সফরের জন্য প্রস্তুতি শিবিরেরও আয়োজন করা হয়েছিল। কিন্তু শিবির শুরু আগেই এল দুঃসংবাদটা। দলের  তিন জনের শরীরে করোনা সংক্রমণ ধরা পড়ল। তিন জনের মধ্যে দু'জন ক্রিকেটার এবং একজন সাপোর্ট স্টাফ রয়েছেন। তিন জনকেই প্রস্তুতি শিবির থেকে দূরে সরিয়ে রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আগামী ২৭ জুলাই থেকে শুরু হওয়ার কথা দক্ষিণ আফ্রিকার হাই-পারফর্ম্যান্স স্কোয়াডের এই ট্রেনিং ক্যাম্প। যদিও প্রস্তুতি শিবির বাতিলের কোনও খবর এখনও পর্যন্ত জানানো হয়নি ক্রিকেট সাউফ আফ্রিকার তরফে।

আরও পড়ুনঃ৫৪ বছর বয়সে বক্সিং রিংয়ে কামব্যাক করছেন মাইক টাইসন, বিশ্ব জুড়ে চড়ছে পারদ

আরও পড়ুনঃঅন্তরঙ্গ মুহূর্তে ধরা দিলেন মেসি ও অ্যান্তোনেলা রোকুজ্জো, মহামারীতে ঘুরতে গিয়ে বিতর্কে মেসি-সুয়ারেজ

মহিলা ক্রিকেটে দলের তিন জন করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবরে একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে প্রোটিয়া ক্রিকেট বোর্ড। সেই বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে,মহিলা দলের মোট ৩৪ জনের করোনা টেস্ট করা হয়েছল। যাঁদের মধ্যে ৩ জনের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। যাঁরা করোনা পজিটিভ হিসেবে চিহ্নিত হয়েছেন, তাঁদের ১০ দিনের সেলফ আইসোলেশনে থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বোর্ডের মেডিক্যাল টিম তাঁদের দিকে নজর রাখছে। আপাতত আক্রান্ত তিন জনের শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল রয়েছে। সকল ক্রিকেটারদের  ক্যাম্পের আগে দু বার ও পরে দুবারপ করোনা পরীক্ষা করা হবে বলেও জানানো হয়েছে প্রোটিয়া ক্রিকেট বোর্ডের তরফে।