লাদাখের গালওয়ান উপতক্যায় চিনা হামলা ২০ জন ভারতীয় সেনার শহীদ হওয়ার পর থেকেই উত্তাল গোটা দেশে। প্রতিবাদে দেশ জুড়ে উঠছে চিন বিরোধী স্লোগান। সরকারের কাছে চিনকে যোগ্য জবাব দেওয়ার দাবি জানানোর পাশাপাশি উঠেছে সমস্ত চিনা পণ্য বর্জনের আওয়াজও। চিনা দ্রব্যে আগুন ধরিয়েও চলেছে প্রতিবাদ। উঠেছে আইপিএল থেকে সমস্ত ধরনের চিনা স্পনসর বর্জনের দাবি। সীমান্তে চিনের সঙ্গে উত্তেজনার ফলে ভারত সরকার ৫৯টি চিনা মোবাইল অ্যাপ্লিকেশন নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছে  কেন্দ্রীয় সরকার। যার মধ্যে রয়েছে বহুপ্রচলিত অ্যাপ টিকটকও।

আরও পড়ুনঃঅভিনব উদ্যোগ 'মহারাজ' ভক্তদের, জন্মদিনে আসছে সৌরভের ছবি দেওয়া মাস্ক

করোনা ভাইরাসের জেরে লকডাউনে টিকটকেই মজেছিলেন অস্ট্রেলিয়ার তারকা ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার। স্ত্রী ও মেয়েদের নিয়ে নিত্যদিন বানাচ্ছিলেন নতুন নতুন ভিডিও। মানুষকে মনোরঞ্জনও করছিলেন। আর তার বেশিরভাগ ভিডিওই ছিল ভারতীয় গান বা অ্যাক্টের উপর। আইপিএলে খেলার জন্য দীর্ঘ সময় ভারতে কাটিয়েছেন ওয়ার্নার। যার ফলে ভারতীয় সংস্কৃতির প্রতি বেড়েছে অজি তারকার ভালবাসা। তার লাগাতার করা টিকটক ভিডিও গুলিই তার প্রমাণ। কিন্তু ভারতে টিকটক বন্ধে করার ফলে এখন ওয়ার্নার কী করবেন তা অবশ্য জানা যায়নি এখনও।

আরও পড়ুনঃ'ধোনির অধিনায়কত্বে রয়েছে সৌরভের গুণ'

আরও পড়ুনঃকবে থেকে মাঠে ফিরছে টিম ইন্ডিয়া, ইঙ্গিত দিলেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্য়ায়

যেহেতু টিকটকেই অনেকটা সময় কাটাচ্ছিলেন ওয়ার্নার। তাই টিকটক বন্ধ হয়ে যাওয়াতে ওয়ার্নারকে মজার ছলে খোঁচা দিতে ছাড়েননি ভারতীয় তারকা স্পিনার রবিচন্দ্র অশ্বিন।কারণ টিকটকে স্ত্রী ও মেয়েদের নিয়ে ওয়ার্নারের ভারতীয় গানের তালে নাচের একাধিক ভিডিও তাঁর ভারতীয় অনুরাগীদের মধ্যে বিপুল জনপ্রিয় হয়। স্বাভাবিকভাবেই অজি প্রতিদ্বন্দ্বীর এমন সব কাণ্ড নজর এড়ায়নি অশ্বিনেরও। টিকটক নিষিদ্ধ হওয়ার পরেই ওয়ার্নারকে এই নিয়ে খোঁচা দেওয়ার সুযোগ হাতছাড়া করেননি অশ্বিন। তিনি টুইটারে লেখেন, ‘আপ্পো আনওয়ার? ডেভিড ওয়ার্নার’। যার বাংলা তর্জমা করলে দাঁড়ায়, ‘এবার কী করবে ওয়ার্নার?’ যদিও এই বিষয়ে এখনও কোনও প্রতিক্রিয়া দেনন অজি তারকা ওপেনার। ভারতে টিকটক বন্ধ হওয়া ওয়ার্নার যে কষ্ট পাবেন তা অবশ্য বলার অপেক্ষা রাখে না।