বিশ্ব ক্রিকেটে প্রয়াত হলেন আরও এক কিংবদন্তী। এবার বিদায় নিলেন ডব্লুউজ-এর শেষ সদস্য এভার্টন উইকস। এই কিংবদন্তীর মৃত্যুকালে বয়স হয়েছিল ৯৫ বছর। দীর্ঘদিন ধরেই বার্ধক্যজনিত রোগে ভুগছিলেন এই ক্যারেবিয়ান তারকা। বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে একাধিক রোগ ব্যাধিতে আক্রান্তও হচ্ছিলেন তিনি। অবশেষে বার্বাডোজে নিজের বাস ভবনে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করলেন এভার্টন উইকস।  কিংবদন্তী এভার্টন উইকসের প্রয়াণ ক্রিকেট বিশ্বে বিরাট শূন্যতা সৃষ্টি করবে বলে মত সকলের।

আরও পড়ুনঃসৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের দল হারানোর ক্ষমতা রাখে বিরাট কোহলির দলকে

থ্রি ডব্লুউজ-এর অপর দুই সদস্য স্যার ক্লাইড ওয়ালকট এবং স্যার ফ্র্যাঙ্ক ওরেল আগেই চলে গিয়েছিলেন। ১৯৬৭ সালে প্রয়াত হয়েছেন  ফ্র্যাঙ্ক ওরেল।  ২০০৬ সালে প্রয়াত হয়েছেন ক্লাইড ওয়ালকট। এবার চিরতরে বন্ধুদের কাছেই চলে গেলেন এভার্টন উইকস। তিনজনেরই ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে টেস্ট অভিষেক হয়েছিল ১৯৪৮ সালে। মাত্র ২২ বছর বয়সে কেনিংটন ওভালে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক অভিষেক হয় উইকসের। ৪০ ও ৫০-এর দশকে বিশ্বের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান হিসেবে পরিচিত ছিলেন তিনি। বর্ণোজ্জ্বল কেরিয়ারে ওয়েস্ট ইন্ডিজের হয়ে ৪৮টি টেস্ট খেলেছেন উইকস। ৫৮.৬১ গড়ে করেছেন ৪,৪৫৫ রান। কেরিয়ারে ১৫টি আন্তর্জাতিক সেঞ্চুরি ও ১৯টি হাফ-সেঞ্চুরি করেছেন উইকস। সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত ইনিংস ২০৭ রানের। ১৯৪৮ সালে পর পর পাঁচটি টেস্ট সেঞ্চুরি করার বিশ্বরেকর্ড গড়েন তিনি। ৯৫৮ সালে পোর্ট অফ স্পেনে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে কেরিয়ারের শেষ টেস্ট খেলেন উইকস। 

আরও পড়ুনঃবিশ্ব ক্রিকেটে ভারতীয় ক্রিকেটারদের এমন কিছু রেকর্ড,যা ভাঙা একপ্রকার অসম্ভব

আরও পড়ুনঃক্রিকেট ইতিহাসে এমন ৫ ক্রিকেটার,যারা কোনও দিন 'নো বল' করেননি

এভার্য়টন উইকসের প্রয়াণে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট বোর্ডের তরফ থেকে শোক প্রকাশ করা হয়। ট্যুইটারে শোক বার্তায় উইন্ডিজ ক্রিকেটের তরফ থেকে লেখা হয়,'এক কিংবদন্তীর প্রয়াণে আমরা গভীরভাবে শোকাহত। এভার্টন উইকস আমাদের কাছে একজন হিরো ছিলেন। তাঁর পরিবারের প্রতি আমাদের সমবেদনা। সমবেদনা বিশ্ব জুড়ে তার বন্ধু ও অনুগামীদের প্রতিও। ইশ্বর ওনার আত্মাকে শান্তি দিক।' কিংবদন্তী এভার্টন উইকসের প্রয়াণে শোকস্তব্ধ ক্রিকেট বিশ্ব।