শেষ দফার ভোট গ্রহণের আগে তাঁর রোড শো ঘিরেই রণক্ষেত্রের চেহারা নিয়েছিল কলকাতা। ভাঙা হয়েছিল বিদ্যাসাগরের মূর্তি। 

বাংলায় ভোটে বিপুল সাফল্যের পরে অবশ্য ফের কলকাতায় রোড শো করতে পারেন বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ। রাজ্যের বিজেপি-র দুর্দান্ত সাফল্যের উদযাপনেই কলকাতায় রোড শো করার পরিকল্পনা নিয়েছে দল। সেই রোড শোতে নিজে হাজির থাকার ইচ্ছে প্রকাশ করেছেন বিজেপি সভাপতি। এমন জানিয়েছেন দলের রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তবে কবে এই রোড শো হবে তা এখনও ঠিক করে উঠতে পারেনি রাজ্য বিজেপি নেতৃত্ব। নেতারা বিভিন্ন জেলা থেকে কলকাতায় ফেরার পরে দিল্লির কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের সঙ্গে কথা বলে এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হতে পারে।

এতদিন বাংলা থেকে বিজেপি-র সাংসদ সংখ্যা ছিল মাত্র দুই। সেটাই একধাক্কায় এবার পৌঁছে গিয়েছে ১৮-তে। স্বভাবতই বিজেপি সমর্থক এবং নেতারা এই জয়কে স্মরণীয় করে রাখতে চান। দিলীপবাবু জানিয়েছেন, রাজ্য থেকে বিজয়ী দলের সাংসদরা একসঙ্গে দিল্লি যাবেন শপথ নিতে। বাংলাকে পাখির চোখ করেছেন বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এই অবস্থায় বাংলাকে গুরুত্ব দিতে এ রাজ্য থেকে জয়ী সাংসদদের কয়েকজনকে মন্ত্রী হিসেবে বেছে নেওয়া হয় কি না, সেদিকেও আগ্রহ নিয়ে তাকিয়ে আছে বঙ্গ বিজেপি।

গোটা দেশে গেরুয়া ঝড় ওঠায় এককভাবে ৩০০  পার করে ফেলেছে বিজেপি। এনডিএ পেয়েছে ৩৪৯ আসন। কিন্তু বিজেপি নেতাদের যেন সবথেকে বেশি তৃপ্তি দিচ্ছে বাংলায় দলের দুরন্ত ফল। কারণ এই ফলের মধ্যেই লুকিয়ে রয়েছে ২০২১ সালের বিধানসভা ভোটে বাংলা দখলের হাতছানি। সম্ভবত সেই কারণেই দলীয় কার্যালয় থেকে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বক্তব্য রাখতে গিয়েও বার বার বাংলার নাম নিয়েছেন অমিত শাহ। তিনি এবং নরেন্দ্র মোদী এরাজ্যে এসে প্রচারে ঝড় তুলেছেন। যার সুফল পেল বিজেপি। স্বভাবতই বাংলার দলের সেলিব্রেশনে উপস্থিত থাকতেও মুখিয়ে রয়েছেন বিজেপি সভাপতি।