গরমে হাঁসফাঁস করেও ভোট দিতে যাচ্ছে মানুষ। সেই প্রসঙ্গে এবার মুখ খুললেন বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতিশ কুমার। 

সপ্তম দফায় ভোট দিয়ে সংবাদমাধ্যমের কাছে নীতিশ জানান, এই কাঠফাটা গ্রীষ্মে এতগুলি দফায় ভোট হওয়া উচিত নয়। নির্বাচনের জন্য এটা (গ্রীষ্ম) সঠিক সময় নয়। নির্বাচন হওয়া উচিত ফেব্রুয়ারি-মার্চ অথবা অক্টোবর-নভেম্বর নাগাদ। দুই থেকে তিনটে দফায় ভোট হওয়া উচিত আমাদের দেশে। 

রবিবার একদম সকাল সকাল ভোট দিয়েছেন নীতিশ। মনে করা হচ্ছে গরম এড়াতেই সকাল সকাল বুথে হাজির ছিলেন তিনি। 

বুথ থেকে ভোট দিয়ে বেরিয়েই নীতিশ কুমার জানান, এই গরম নির্বাচন প্রক্রিয়া কষ্টকর। তাই গরম এড়াতে দুই থেকে তিনটে দফায় ভোট হওয়া উচিত। এই মর্মে পরবর্তী নির্বাচনে সময়ের পরিবর্তনের জন্য ব্যবস্থা করবেন বলেও জানিয়েছেন তিনি। 

বিহারের মুখ্য়মন্ত্রী বলছেন, নির্বাচন হয়ে গেলে, ভোট কয় দফায় হবে এবং কোন সময়ে হবে এই বিষয়ে আলোচনা করার জন্য আমি অন্য়ান্য দলের সভাপতিদের চিঠি লিখব। বিভিন্ন বিষয়ে মতান্তর থাকলেও এই বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করব। এটি সবার জন্যই, বিশেষ করে ভোটারদের জন্য সুবিধাজনক হবে। 

প্রসঙ্গত, আজই শেষ দফার নির্বাচন। সপ্তম দফার নির্বাচনে ভোট দিচ্ছে ৮ রাজ্যের ৫৯ আসনের ভোটার। এদিনের অন্যতম গুরুত্বর্পূণ রাজ্য হল পশ্চিমবঙ্গ। এখানে ৯ কেন্দ্রে ভোট হচ্ছে। ২০১৪-য় এই ৯টি কেন্দ্রেই জয়ী হয়েছিল তৃণমূল। তাই এবারও কি একই ফলাফল হবে, সেটাই দেখার।