বৃহস্পতিবারই ঘনিষ্টমহলের সকলকে পাশে নিয়ে দীর্ঘদিনের প্রেমের সম্পর্ককে কাগজে কলমে সিকৃতি হয়েছিলেন দীপঙ্কর দে ও ও দোলন রায়। একে অন্যের প্রতি থাকা অটুট প্রেমের সম্পর্কের পরিণতির সাক্ষী থেকেছিলেন অনেকেই। ছিমছাম বিয়েকে নিয়ে নেট দুনিয়ায় জল্পনাও হয় বিস্তু। সকলেই শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন এই দম্পতিকে। কিন্তু বিয়ের পর কাটল না ২৪ ঘন্টা, তারই আগে হাসপাতাল মুখো অভিনেতা। 

আরও পড়ুনঃ বিবাহবার্ষিকীতে চূর্ণীকে চুম্বনে ভরিয়ে দিলেন কৌশিক, পাল্টা দিলেন অভিনেত্রীও

আরও পড়ুনঃ মহানায়িকা কেন তিনি, সুচিত্রা সেন সম্পর্কে রইল ১২ তথ্য

দীর্ঘদিন ধরে দোলন রায়ের সঙ্গে সম্পর্কে থাকার পর অবশেষে তাঁরা সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন যে, এবার বিয়ে করে নেওয়া যাক। বয়সকালে বিস্তর আড়ম্বর নয়। হাইল্যান্ড পার্কের কাছে থাকা একটি রেস্তোরাতেই বসেছিল বিয়ের আসর। রেজিষ্ট্রি করে বিয়ে করে মালাবদল। সঙ্গে খানিকটা খাওয়া দাওয়া। বৃহস্পতিবারের সুখ যেন পলকরে ম্লান হয়ে গেল। শুক্রবার দুপুর থেকেই শ্বাসকষ্ঠ শুরু হয় দীপঙ্কর দে-র।

শুক্রবার দুপুরে শারীরিকভাবে অসুস্থ বোধ করলে দীপঙ্করকে  এক স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখান থেকেই ডাক্তারের পরিমর্শে নিয়ে যাওয়া হয় এক বেসরকারি হাসপাতালে। সেখানেই বর্তমানে চিকিৎসারত দীপঙ্কর দে। এখনও স্বাস্থ্যের অবস্থার উন্নতি ঘটেনি তাঁর। চিকিৎসা চলছে। সেভাবে কথাও বলছেন না দীপঙ্কর। জানিয়েছেন দোলন রায়। বর্তমানে অভিনেতার বয়স হয়েছে ৭৫ বছর। ঘনিষ্ট সূত্রে খবর তিনি মাঝে মধ্যেই সিওপিডি-র সমস্যায় ভোগেন। এখন চিকিৎসা চলছে। হাসপাতেই রয়েছেন এখন অভিনেতা।