Asianet News BanglaAsianet News Bangla

সইফ অমৃতার বিচ্ছেদের দুঃখ কতটা ভেঙে দিয়েছিল সারা আর ইব্রাহিমকে?

ভিন্ন বাড়িতে থেকেও বাবা সইফ ছিলেন মাত্র একটি ফোন কলের দূরত্বে। যেকোনও সমস্যায় বা উদযাপনে বাবার পাশে থাকার কথা এক বাক্যে স্বীকার করেছেন সারা আলি খান। 

Impact of the divorce of saif ali khan and amrita singh on sara ali khan and ibrahim ali khan ANBSS
Author
Kolkata, First Published Aug 23, 2022, 5:30 PM IST

১৯৯১ সালে বলিউড অভিনেতা সইফ আলি খান আর অমৃতা সিংহের যখন বিয়ে হয়, তখন দুজনেই ছিলেন নিজেদের কেরিয়ারের মধ্য গগনে। সইফের বয়স প্রায় ২১ এবং অমৃতার প্রায় ৩৩। ভারতের সবচেয়ে বেশি বয়সের ফারাক থাকা প্রেমিক যুগলের মধ্যে এই রোম্যান্টিক জুটি ছিলেন দারুণ বিখ্যাত। কিন্তু, এর প্রায় ১৩ বছর পর যখন দুজনের বিচ্ছেদ হয়, দুই ফুটফুটে সন্তান সারা আর ইব্রাহিম  তখন খুবই ছোট।

সইফ আলি খান আর অমৃতা সিংহের প্রেম, বিয়ে এবং বিচ্ছেদ নিয়ে ২০০৪ সালে বলিউডে কম তোলপাড় হয়নি। বিচ্ছেদ হওয়ার পর কেটে গিয়েছে প্রায় ১৮ বছর। সইফ আর অমৃতার দুই ছেলে-মেয়ে ইব্রাহিম আলি খান আর সারা আলি খানের মুখ প্রায় নিজেদের বাবা মায়েরই যৌবনকালের প্রতিচ্ছ্ববি। সারা এই মুহূর্তে বলিউডের অন্যতম জনপ্রিয় নায়িকা। বিভিন্ন সাক্ষাৎকারে নিজের ছেলেবেলার কথা, বেড়ে ওঠার কথা বলেছেন সারা। বারবার উল্লেখ করেছেন যে, ভিন্ন বাড়িতে থেকেও বাবা সইফ ছিলেন মাত্র একটি ফোন কলের দূরত্বে। অর্থাৎ, যেকোনও সমস্যায় বা উদযাপনে বাবার পাশে থাকার কথা এক বাক্যে স্বীকার করেছেন ছেলেমেয়েরা।

ছেলেমেয়েদের প্রসঙ্গে সইফ আলি খানও বেশ স্পষ্টবক্তা। মা-বাবার অশান্তি,বিচ্ছেদ প্রত্যেক সন্তানের কাছেই বেদনাদায়ক। সে কথা স্পষ্টত ভাগ করা না গেলেও ছেড়ে যাওয়ার একটা অব্যক্ত ব্যথা যথেষ্ট প্রভাব ফেলে শিশুমনে। অমৃতার সাথে সইফের বিচ্ছেদও প্রভাব ফেলেছিল সারা আর ইব্রাহিমের মনে, সে কথা নিজে মুখেই স্বীকার করেন সইফ। তিনি আক্ষেপ করেন,“আমি ভাবতেই পারিনি আমাদের বিচ্ছেদ সারা আর ইব্রাহিমের উপর কী প্রভাব ফেলবে।” অভিনেতা আরও বলেছেন,“আমি আগের চেয়ে এখন অনেক বেশি সময় কাটাই ওদের সঙ্গে। এ কথা এক দিন নিজেই বলেছিল সারা। আমি শুধু প্রার্থনা করছি যেন সব সম্পর্ক ঠিক থাকে।”

Impact of the divorce of saif ali khan and amrita singh on sara ali khan and ibrahim ali khan ANBSS

অন্য দিকে, মা-বাবার বিচ্ছেদ হোক কিংবা বাবার সঙ্গে সম্পর্ক—প্রতিটি বিষয়ে বাবা সইফের মতোই স্পষ্টবক্তা মেয়ে সারা আলি খানও। এক সাক্ষাৎকারে সারা বলেন, “আমি বাবার ছত্রছায়ায় বড় হইনি ঠিকই। কিন্তু আমি জানি আমার যে কোনও সমস্যায় সব সময় পাশে আছে বাবা।” 

"আমার প্রাক্তন স্ত্রী অমৃতার কাছে আমি সত্যিই অনেক ঋণী, এবং তাঁর প্রতি আমার প্রচুর শ্রদ্ধা রয়েছে এবং আমি সত্যিই চাই এবং আমি আশা রাখি যে, একদিন আমরা বন্ধু হব", সারা এবং ইব্রাহিমের মা অমৃতা সিং-এর প্রতি গভীর কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন অভিনেতা সইফ আলি খান


আরও পড়ুন-
বেনামি লেনদেন করলে আর থাকছে না জেল হওয়ার সম্ভাবনা, ‘অযৌক্তিক’ বলে দিল সুপ্রিম কোর্ট
আচমকা মাসল ক্র্যাম্পে বেঁকে গেল পা, মাটিতে শুয়েই বান্ধবীকে বিয়ের প্রস্তাব প্রেমিকের, ভাইরাল ভিডিও
নবী সম্পর্কে ফের বিতর্কিত মন্তব্য, হায়দরাবাদে গ্রেফতার করা হল বিজেপি বিধায়ককে

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios