বাংলাচলচ্চিত্রের একশো বছর, নভেম্বর মাসেই প্রথম বাংলা ছবি আত্ম প্রকাশ করেছিল। সাল ১৯১৯, তবে থেকেই শুরু পথ চলা, ছবির নাম বিল্মমঙ্গল। হাজারো চরাই উতরাই পেরিয়ে আজ তা এক ইন্ডাস্ট্রি। বাংলা শিল্প জগতের এক বড় অধ্যায় এই একশো বছর। যেখানে পরতে-পরতে লুকিয়ে রয়েছে হাজারও ওঠা পড়ার গল্প, হাজারও না পাওয়ার গল্প। আবার এমনও গল্প রয়েছে যা বাংলার পরিচিতিকে বিশ্বের দরবারে তুলেধরেছে, এনেছে অস্কার। 

বাংলার চলচ্চিত্রের এই ঐতিহ্যপূর্ণ দিনে প্রথম আত্মপ্রকাশ করল মায়াকুমারী, অরিন্দম শীলের পরবর্তী ছবি। এই ইতিহাসকে সাক্ষী করেই অরিন্দম শীল প্রকাশ্যে আনলেন তাঁর পরবর্তী ছবির খবর। ২০১৯ নভেম্বর মাস, তার ওপর চলচ্চিত্র উতসবের ২৫ তম বর্ষ,  সে সন্ধিক্ষনেই মুক্তি পেল অরিন্দম শীলের পরবর্তী ছবির পোস্টার। পোস্টারের ওপর লেখা বাংলা সিনেমা একাই একশো। তবে বাংলা সিনেমার ইতিহাসকে কেন্দ্র করে তৈরি ছবি এটি নয়। এখানে একাল ভুলে সেকালের এক গল্প তুলে ধরা হবে। মায়াকুমারী একজন অভিনেত্রী। যাঁর জীবনীকে কেন্দ্র করেই তৈরি হতে চলেছে এই ছবি। 

 

 

গ্রীষ্মেই আত্মপ্রকাশ করবে এই ছবি। কীভাবে তখনকার সমাজে যুদ্ধ করতে হয়েছিল এক অভিনেত্রীকে তাঁর গল্পই উঠে আসবে এই ছর মাধ্যমে। আজ যা ফ্যাশন কাল ছিল তা অপরাধ। এমনই হাজারও উঠা পড়ার গল্প জড়িয়েছিল মায়াকুমারীর জীবনে। হাজারো চোখের জল, যুদ্ধ তেজ ও যেদের বশেই পথ চলা ধরে রেখেছিলেন তিনি। সেখান থেকেই যাত্রা অক্ষুন্ন ছবির। এই চরিত্রের জন্য পরিচালক ঋতুপর্ণা সেনগুপ্তকেই বেছে নিয়েছেন। শীঘ্রই শুরু হবে ছবির কাজ।