সম্ভবত আগামী রবিবার অর্থাৎ আগামীকাল ইস্টবেঙ্গলের নতুন জার্সি উন্মোচিত হতে চলেছে। ইতিমধ্যেই নতুন সেই জার্সির সেট গোয়ায় পৌঁছে গিয়েছে। এখনও অবধি পাওয়া খবর অনুযায়ী রবিবার সেই জার্সি উদ্বোধন করবেন দলের হেড কোচ রবি ফাউলার। এর আগেই তিনি জানিয়েছেন যে দলের প্র্যাকটিস জার্সিতে থাকছে না লাল-হলুদ রং। খেলোয়াড়রা নিজেদের যোগ্যতা প্রমাণ করে মাঠে নামার সুযোগ পেলে তবেই লাল হলুদ জার্সি গায়ে উঠতে পারে তাদের। স্বভাবতই লাল হলুদ কোচের এই বক্তব্যে খুশি হয়েছেন দলের অনুগামীরা। এখন তার হাত থেকে নতুন মরশুমের জার্সি উন্মোচন দেখতে মুখিয়ে রয়েছে ইস্টবেঙ্গল ভক্তরা। 

এদিকে ১৪দিনের কোয়ারেন্টিন পর্ব কাটিয়ে দলের অনুশীলনে যোগ দেন ফাউলার।  জানা গিয়েছে  দলের দেশি খেলোয়াড়দের বর্তমান ফিটনেস দেখে তিনি যথেষ্টই সন্তুষ্ট। আজ থেকে পুরোদমে অনুশীলন শুরু করছে গোটা দল। এই মরশুমে দলকে কে নেতৃত্ব দেবেন তা এখনও স্পষ্ট করে জানা যায়নি, তবে সেই ক্ষেত্রটাও যে পারফরম্যান্সের ওপর নির্ভর করবে তা নিশ্চিত হয়ে গিয়েছে। সিনিয়র মানেই যে নেতৃত্বদানের অধিকার পাওয়া যাবে না তা ভালো করেই বুঝিয়ে দিয়ে ফাউলার জানিয়েছেন খুব শীঘ্রই এই ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবেন তিনি। 

ইস্টবেঙ্গল এই প্রথম আইএসএলে খেলতে যাচ্ছে। আর সেই যুদ্ধে প্রথম ম্যাচেই তারা মুখোমুখি হতে চলেছে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী মোহনবাগানের নতুন অবতার এটিকে মোহনবাগানের। লাল হলুদ কোচ রবি ফাউলার জানেন যে তার কাছে এই শুরুটা অনেকটাই কঠিন হয়ে গেল, কারণ ডার্বি হল সমস্ত বাঙালির কাছে একটি ঐতিহ্যের ম্যাচ, মর্যাদার লড়াই। ইস্টবেঙ্গলের এক বাঙালি ফুটবলার জানিয়েছেন, দলের সকলে উত্তেজিত হলেও তা যাতে মনোসংযোগে ব্যাঘাত না ঘটায় সেই সম্পর্কে সতর্ক করে দিয়েছেন ইস্টবেঙ্গল হেড কোচ। নিজেদের সেরাটা দিলে ডার্বি জয় অসম্ভব নয় সেকথা জানিয়ে দিয়েছেন তিনি। তার পেপটক শুনে উত্তেজনায় ফুটছেন জেজে, সামাদ, নারায়ণ দাসরা।