ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ-
মরশুমের শুরুর দিকেই জমে উঠেছে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ। টানা তিন ম্যাচ জিতে শীর্ষে রয়েছে ব্রেন্ডন রজার্সের লেস্টার সিটি। শেষ ম্যাচে পেপ গুয়ার্দিওয়ালার শক্তিশালী ম্যান সিটিকে হারিয়েছে তারা। হ্যাটট্রিক করেছেন জেমি ভার্ডি। টানা তিন ম্যাচে জিতে গোলপার্থক্যে লেস্টারের থেকে সামান্য পিছিয়ে দুই নম্বরে রয়েছে লিভারপুল। শেষ ম্যাচে মিখায়েল আর্তাতের আর্সেনালের বিরুদ্ধে পিছিয়ে পরেও ৩-১ গোলে জিতেছে তারা। মরশুমের প্রথম ম্যাচ হারার পর ব্রাইটনকে হাড্ডাহাড্ডি ম্যাচে হারিয়ে মরশুমের প্রথম জয় পেয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। টানা তিন ম্যাচ জিতে লিগ টেবিলের তিন নম্বরে রয়েছে কার্লো আনসেলোত্তির এভার্টন। ওয়েস্ট ব্রমের বিরুদ্ধে কোনওরকমে হার বাঁচিয়ে ৯ নম্বরে রয়েছে  চেলসি। তিনটি ম্যাচের পর একটি জিতে একটি হেরে ও একটি ড্র করে আট নম্বরে জোসে মৌরিনহোর টট‍্যেনহ‍্যাম হটস্পার। অপরদিকে ১৬ বছর প্রথম ডিভিশনে উঠে মরশুমের প্রথম ম্যাচে লিভারপুলের কাছে অল্পের জন্য হেরে তারপর পর পর দুটি ম্যাচ জিতে সাত নম্বরে রয়েছে মার্সেলো বিয়েলসার লিডস ইউনাইটেড। 

লা লিগা-
এই মুহুর্তে ৩ টি ম্যাচের ২ টি তে জিতে ও একটিতে হেরে লা লিগা শীর্ষে রিয়াল বেতিস। তবে শেষ সপ্তাহে মাঠে ফিরেছে লা লিগার তিন প্রধান। প্রথম ম্যাচে জয় হাতছাড়া হওয়ার পর দ্বিতীয় ম্যাচে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর ৩-২ গোলে বেতিসকে হারিয়ে চলতি মরশুমের লা লিগায় প্রথম জয় তুলেছে গতবারের চ্যাম্পিয়ন রিয়াল মাদ্রিদ। বিধ্বংসী ফর্মে লা লিগা অভিযান শুরু করেছে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ। প্রথম ম্যাচেই গ্রানাডাকে ৬-১ গোলে হারিয়েছে তারা। বার্সার তারকা স্ট্রাইকার সুয়ারেজ অ্যাটলেটিকোর প্রথম ম্যাচে মাত্র ২০ মিনিটের জন্য নেমেই করেছেন দুটি গোল ও একটি এসিস্ট। ভিলারিয়েলকে দাপট দেখিয়ে হারিয়েছে। লিওনেল মেসির পেনাল্টি, আনসু ফাতির জোড়া গোল এবং পাউ তোরেসের আত্মঘাতী গোলে ভিলারিয়েল কে ৪-০ ফলে উড়িয়ে দিয়েছে তারা। কোম্যানের নতুন পদ্ধতিতে দ্রুত অভ্যস্ত হয়ে উঠতে চান কুটিনহো-রা। 

সিঁরি আ-
প্রথম ম্যাচে জেতার পর দ্বিতীয় ম্যাচে রোমার ঘরের মাঠে বেশ খানিকটা অস্বস্তিতে পড়েছিল জুভেন্তাস। কিন্তু ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর জোড়া গোলের দৌলতে ১০ জন হয়ে যাওয়া সত্ত্বেও রোম থেকে ১ পয়েন্ট নিয়ে ফেরে তারা। এই মুহূর্তে টানা দু ম্যাচ দাপটের সাথে জিতে লিগ শীর্ষে গ্যানারো গ্যাতুসোর নাপোলি। শেষ ম্যাচে জেনোয়াকে ৬-০ গোলে হারিয়েছে তারা। এই বছর প্রথম ডিভিশনে ওঠা ক্রোটোনাকে ২-০ ফলে হারিয়ে টানা দুই ম্যাচ জিতে শীর্ষ স্থানের পরেই ২ নম্বরে আছে এসি মিলান। হাড্ডাহাড্ডি ম্যাচে ফ্রাঙ্ক রিবেরির অসাধারণ পারফরম্যান্স সত্ত্বেও ফ্লিয়োরেন্টিনা কে ৪-৩ ফলে হারিয়ে মরশুমে নিজেদের প্রথম ম্যাচে জয় পেয়েছে আন্তোনিও কন্তের ইন্টার মিলান। গোল পেয়েছেন লুকাকু, ল্যাওতারো মার্টিনেজ। 

বুন্দেশলিগা-
প্রথম ম্যাচে ৮-০ গোলে জয় পেলেও, বুন্দেশলিগার দ্বিতীয় ম্যাচে হফেনহাইমের বিরুদ্ধে ৪-১ গোলে অপ্রত্যাশিত হার বায়ার্ন মিউনিখের। আউসবার্গের কাছে অপ্রত্যাশিত ভাবে ২-০ গোলে হেরে বড় ধাক্কা খেয়েছে বুরুশিয়া ডর্টমুন্ডও। টানা দুটি ম্যাচ জিতে বুন্দেশলিগার শীর্ষে হফেনহাইম। দুটি ম্যাচ জিতে গোলপার্থক‍্যতে সামান্য পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় স্থানে আউসবার্গ। 

লিগ ওয়ান-
ফ্রেঞ্চ লিগে শুরুর দুটি ম্যাচ হারার পর টানা তিনটি ম্যাচ জিতে ছন্দে ফিরছে পিএসজি। গত ম্যাচে রেইমসের বিরুদ্ধে মারিও ইকার্ডির জোড়া গোল জয় পেয়েছে তারা। এই মুহূর্তে লিগে সাত নম্বরে আছে তারা। ৪ টি ম্যাচ জিতে ও একটি ড্র করে শীর্ষে রয়েছে রেনেস।