দু'দশক পূর্ণ করল 'এক পল কা জিনা', দেখে নিন ফেলে আসা ২০ বছরের একঝলক

First Published 15, Jan 2020, 10:33 AM IST

জীবনের ৪৫টি বসন্ত পেরিয়ে এই বছর ৪৬-এ পা দিলেন বলিউড হার্টথ্রব হৃতিক রোশন । কিন্তু এই বছরের জন্মদিনটা যেন একটু বেশিই স্পেশ্যাল ছিল অভিনেতার কাছে।  ২০০০ সালে 'কহো না প্যায়ার হ্যায়' ছবিতে বলিউডে অভিষেক হয়েছিল হৃতিকের।  একই সঙ্গে এই ছবিতেই বলিউডে পা রেখেছিলেন বলি অভিনেত্রী আমিশা প্যাটেল।  সেখান থেকে শুরু করে গতকালই ২০ বছর পার করে ফেলল এই ছবি। সারা বলিউড কাঁপিয়ে সুপারহিটের তকমা পেয়েছিল এই ছবি। ছবির সুপারহিট গান 'এক পাল কা জিনা'গানটিও দেখতে দেখতে পার করে ফেলল ২০ বছর।  একনজরে দেখে নিন 'এক পাল কা জিনা'র ফেলে আসা ২০ বছরের ঝলক।

'কহো না প্যায়ার হ্যায়'-এর ছবিরসুপারহিট গান 'এক পাল কা জিনা'গানটিও দেখতে দেখতে পার করে ফেলল ২০ বছর। পরিচালক রাকেশ রোশনের ভাই  রাজেশ রোশন গানটির সঙ্গীত পরিচালক ছিলেন। গায়ক লাকি আলির কন্ঠে গানটি সুপারহিটের তকমা পেয়েছিল।

'কহো না প্যায়ার হ্যায়'-এর ছবিরসুপারহিট গান 'এক পাল কা জিনা'গানটিও দেখতে দেখতে পার করে ফেলল ২০ বছর। পরিচালক রাকেশ রোশনের ভাই রাজেশ রোশন গানটির সঙ্গীত পরিচালক ছিলেন। গায়ক লাকি আলির কন্ঠে গানটি সুপারহিটের তকমা পেয়েছিল।

রোহিতের মৃত্যুর পর তার  জন্য আমিশা মন খারাপ করে বসে থাকলে তার দুঃখ ভোলানোর জন্য আমিশার বোন একটি ডিস্কোতে নিয়ে যায় আমিশাকে। আর সেখানে গিয়েই 'এক পাল কা জিনা'র সঙ্গে নাচতে দেখে হৃতিককে।

রোহিতের মৃত্যুর পর তার জন্য আমিশা মন খারাপ করে বসে থাকলে তার দুঃখ ভোলানোর জন্য আমিশার বোন একটি ডিস্কোতে নিয়ে যায় আমিশাকে। আর সেখানে গিয়েই 'এক পাল কা জিনা'র সঙ্গে নাচতে দেখে হৃতিককে।

লাকি আলির কন্ঠে গানটি এই সুপারহিট গানটি এতটাই জনপ্রিয় হয়েছিল যে প্রত্যকেই এই গানের সঙ্গে মোহিত হয়ে গিয়েছিল ২০ বছর পরও তার প্রমাণ পাওয়া যাচ্ছে। ছোটবেলার সিনেমা আসল ক্রেজটা আজ বুঝতে পারছেন হৃতিক। হৃতিকের নাচের স্টেপটা 'সিগনেচার স্টেপ' হিসেবেই হৃদয়ে গেথে রয়েছে দর্শকদের।

লাকি আলির কন্ঠে গানটি এই সুপারহিট গানটি এতটাই জনপ্রিয় হয়েছিল যে প্রত্যকেই এই গানের সঙ্গে মোহিত হয়ে গিয়েছিল ২০ বছর পরও তার প্রমাণ পাওয়া যাচ্ছে। ছোটবেলার সিনেমা আসল ক্রেজটা আজ বুঝতে পারছেন হৃতিক। হৃতিকের নাচের স্টেপটা 'সিগনেচার স্টেপ' হিসেবেই হৃদয়ে গেথে রয়েছে দর্শকদের।

.২০০০ সালে 'কহো না প্যায়ার হ্যায়' ছবিতে বলিউডে অভিষেক হয়েছিল হৃতিকের।  একই সঙ্গে এই ছবিতেই বলিউডে পা রেখেছিলেন বলি অভিনেত্রী আমিশা প্যাটেল।

.২০০০ সালে 'কহো না প্যায়ার হ্যায়' ছবিতে বলিউডে অভিষেক হয়েছিল হৃতিকের। একই সঙ্গে এই ছবিতেই বলিউডে পা রেখেছিলেন বলি অভিনেত্রী আমিশা প্যাটেল।

'এক পাল কা জিনা'গান শেষ হওয়ার পরই রাজ এসে সোনিয়ার সঙ্গে কথা বলে। সেখান থেকে শুরু হয় তাদের প্রথম আলাপ। তারপর থেকেই দুজনের মধ্যে প্রেম শুরু হয়।

'এক পাল কা জিনা'গান শেষ হওয়ার পরই রাজ এসে সোনিয়ার সঙ্গে কথা বলে। সেখান থেকে শুরু হয় তাদের প্রথম আলাপ। তারপর থেকেই দুজনের মধ্যে প্রেম শুরু হয়।

প্রাক্তনকে ভোলার জন্য নিউজিল্যান্ডে গেছিলেন আমিশা। আর সেখানেই আলাপ হয় হৃতিকের সঙ্গে।

প্রাক্তনকে ভোলার জন্য নিউজিল্যান্ডে গেছিলেন আমিশা। আর সেখানেই আলাপ হয় হৃতিকের সঙ্গে।

ট্র্যাফিক সিগনালে প্রথম দেখা হয়  হৃতিক-আমিশার।

ট্র্যাফিক সিগনালে প্রথম দেখা হয় হৃতিক-আমিশার।

অমিশা প্যাটেল বিখ্যাতস ডায়লগ 'উস্কো তো হিন্দি নেহি আতে' আজ 20 বছর আবারও মনে করিয়ে দিল।

অমিশা প্যাটেল বিখ্যাতস ডায়লগ 'উস্কো তো হিন্দি নেহি আতে' আজ 20 বছর আবারও মনে করিয়ে দিল।

২০ বছর পার হয়ে গেলেও এই বিখ্যাত ডান্স নাম্বার কারোর মন থেকে মুছে যায়নি। আজ সমানভাবে দর্শকদের মনে এই গান নিজের জায়াগা করে রেখেছে।

২০ বছর পার হয়ে গেলেও এই বিখ্যাত ডান্স নাম্বার কারোর মন থেকে মুছে যায়নি। আজ সমানভাবে দর্শকদের মনে এই গান নিজের জায়াগা করে রেখেছে।

দুই দশক কেটে গেলেও 'এক পাল কা জিনা'গানটি যেন অমর রয়েছে  প্রত্যেকের হৃদয়ে। নাচের প্রতিটি স্টেপও যেন একই রয়ে গেছে মনের মধ্যে। গানটি বাজলেও আজও যেন নিজেদের অজান্তেই হাত, পা নেচে ওঠে।

দুই দশক কেটে গেলেও 'এক পাল কা জিনা'গানটি যেন অমর রয়েছে প্রত্যেকের হৃদয়ে। নাচের প্রতিটি স্টেপও যেন একই রয়ে গেছে মনের মধ্যে। গানটি বাজলেও আজও যেন নিজেদের অজান্তেই হাত, পা নেচে ওঠে।

loader