খোল বাজালেন 'জনসেবক' শুভেন্দু, নিজের কেন্দ্র নন্দীগ্রামে সূচনা করলেন রাশ উৎসবের

First Published Nov 30, 2020, 4:03 PM IST

সম্প্রতি মন্ত্রিত্ব থেকে বিদাই নিয়েছেন। বর্তমানে তিনি আর মন্ত্রী নন, শুধু তৃণমূল বিধায়ক শুভেন্দু অধিকারী। দল বদলের জল্পনা জিইয়ে রেখে যোগদান করছেন একের পর এক সামাজিক অনুষ্ঠানে। সোমবার নিজের বিধানসভা কেন্দ্র নন্দীগ্রামে রাশ উৎসবের সূচনা করলেন তিনি। সেখানে যোগ দিয়ে খোশ মেজাজে দেখা করলেন তাঁকে। ভক্তদের সঙ্গে খোল বাজালেন তিনি। জানালেন, নন্দীগ্রামের সব অনুষ্ঠানে আমি আসি।  

<p>মন্ত্রিত্ব ত্যাগ করার পর রবিবার প্রকাশ্যে জনসভা করেছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। প্রয়াত স্বাধীনতা সংগ্রামীর স্মরণে মহিষাদলে অরাজনৈতিক সভা করেছিলেন। এবার তার পরের দিন তাঁকে গেল নিজের বিধানসভা কেন্দ্রের রাশ উৎসবে।</p>

মন্ত্রিত্ব ত্যাগ করার পর রবিবার প্রকাশ্যে জনসভা করেছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। প্রয়াত স্বাধীনতা সংগ্রামীর স্মরণে মহিষাদলে অরাজনৈতিক সভা করেছিলেন। এবার তার পরের দিন তাঁকে গেল নিজের বিধানসভা কেন্দ্রের রাশ উৎসবে।

<p>মন্ত্রিত্ব ছাড়ার পর এখনও তৃণমূলের বিধায়ক রয়েছেন শুভেন্দু। তাঁকে নিয়ে রাজ্য রাজনীতিতে জল্পনা অব্যাহত রয়েছে। এদিনের রাশ উৎসবের আমন্ত্রণের জন্য নন্দীগ্রামে তাঁর নামাঙ্কিত পোস্টার পড়েছিল 'জনসেবক' বলেই।</p>

মন্ত্রিত্ব ছাড়ার পর এখনও তৃণমূলের বিধায়ক রয়েছেন শুভেন্দু। তাঁকে নিয়ে রাজ্য রাজনীতিতে জল্পনা অব্যাহত রয়েছে। এদিনের রাশ উৎসবের আমন্ত্রণের জন্য নন্দীগ্রামে তাঁর নামাঙ্কিত পোস্টার পড়েছিল 'জনসেবক' বলেই।

<p>রবিবারের অরাজনৈতিক সভায় তাঁর রাজনৈতিক অবস্থান খোলসা করতে পারেন শুভেন্দু। কিন্তু, মঞ্চে দাঁড়িয়ে কোনও রাজনৈতিক বক্তব্যই রাখেননি শুভেন্দু। সোমবার নন্দীগ্রামের রাশ উৎসবে তাঁকে খোল বাজাতে দেখলেন সকলে। কীর্তনের তালে তাঁর সঙ্গে দিলেন ভক্তরাও।</p>

রবিবারের অরাজনৈতিক সভায় তাঁর রাজনৈতিক অবস্থান খোলসা করতে পারেন শুভেন্দু। কিন্তু, মঞ্চে দাঁড়িয়ে কোনও রাজনৈতিক বক্তব্যই রাখেননি শুভেন্দু। সোমবার নন্দীগ্রামের রাশ উৎসবে তাঁকে খোল বাজাতে দেখলেন সকলে। কীর্তনের তালে তাঁর সঙ্গে দিলেন ভক্তরাও।

<p>নন্দীগ্রাম তাঁরই বিধানসভা কেন্দ্র। ২০১৬-র বিধানসভা নির্বাচনে তাঁকে বিপুল ভোটে জয়ী করেছিবেন নন্দীগ্রামবাসী। তাই সেখানকার সব অনুষ্ঠানেই যোগ দিতে যান শুভেন্দু অধিকারী। এদিনের রাশ উৎসবে নিজেই সেকথা জানালেন।</p>

নন্দীগ্রাম তাঁরই বিধানসভা কেন্দ্র। ২০১৬-র বিধানসভা নির্বাচনে তাঁকে বিপুল ভোটে জয়ী করেছিবেন নন্দীগ্রামবাসী। তাই সেখানকার সব অনুষ্ঠানেই যোগ দিতে যান শুভেন্দু অধিকারী। এদিনের রাশ উৎসবে নিজেই সেকথা জানালেন।

<p><br />
২০০৭ সালের নন্দীগ্রাম ভূমি উচ্ছেদ প্রতিরোধ কমিটির আন্দোলনের হাত ধরে উথ্থান হয়েছিল শুভেন্দু। তারপর থেকে বর্তমান শাসক দলের গুরুত্বপূর্ণ নেতা হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। সম্প্রতি, দল থেকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখছেন।</p>


২০০৭ সালের নন্দীগ্রাম ভূমি উচ্ছেদ প্রতিরোধ কমিটির আন্দোলনের হাত ধরে উথ্থান হয়েছিল শুভেন্দু। তারপর থেকে বর্তমান শাসক দলের গুরুত্বপূর্ণ নেতা হয়ে দাঁড়িয়েছিলেন তিনি। সম্প্রতি, দল থেকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখছেন।

<p>নিজের বিধানসভা কেন্দ্র নন্দীগ্রামকে কোনও দিন ভুলে যাননি শুভেন্দু। তাই সোমবারের রাশ উৎসবের সূচনাতেও দেখা গেল তাঁকে। ধর্মীয় অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে কোনও রাজনৈতিক প্রতিক্রিয়া জানালেন না। রাশ উৎসবে খোল, কীর্তনের সঙ্গ দিলেন নন্দীগ্রামবাসীর।</p>

নিজের বিধানসভা কেন্দ্র নন্দীগ্রামকে কোনও দিন ভুলে যাননি শুভেন্দু। তাই সোমবারের রাশ উৎসবের সূচনাতেও দেখা গেল তাঁকে। ধর্মীয় অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে কোনও রাজনৈতিক প্রতিক্রিয়া জানালেন না। রাশ উৎসবে খোল, কীর্তনের সঙ্গ দিলেন নন্দীগ্রামবাসীর।

Today's Poll

একসঙ্গে কতজন প্লেয়ারের সঙ্গে খেলতে পছন্দ করেন