বর্তমানে বিশ্বের সব থেকে 'সেক্সিয়েস্ট অ্যাথলিট', জানুন আলিশা স্মিডের কাহিনি

First Published 4, Jul 2020, 11:05 AM

ইতিমধ্যেই তার দখলে বিশ্বের সবথেকে সেক্সিয়েস্ট অ্যাথলিটের তকমা। তার হৃদয় জুড়ানো রূপ দেখে কাহিল আট থেকে আশি। ট্র্যাকেও প্রতিদ্বন্দ্বীদের ছেড়ে কথা বলেন না। এবার জার্মানির আলিশা স্মিডের লক্ষ্য টোকিও অলিম্পিকে পদক জয়। 
 

<p>রূপ ও গুণ দুই খুব কম মানুষকে দেন ওপরওয়ালা। জার্মানির অ্যাথলিট আলিশা স্মিডের প্রতি ঈশ্বর একটু বেশিই সহৃদয় হয়েথেন। ট্র্যাকে তার দুরন্ত গতি যেমন সকলের নজর কেড়েছে, তেমনই ভুবন ভোলানো রূপ দিয়েও কাবু করেছেন সকলকে। আগামী দিনে তাকে জার্মানির ভবিষ্যতও বলছেন অনেকেই।</p>

রূপ ও গুণ দুই খুব কম মানুষকে দেন ওপরওয়ালা। জার্মানির অ্যাথলিট আলিশা স্মিডের প্রতি ঈশ্বর একটু বেশিই সহৃদয় হয়েথেন। ট্র্যাকে তার দুরন্ত গতি যেমন সকলের নজর কেড়েছে, তেমনই ভুবন ভোলানো রূপ দিয়েও কাবু করেছেন সকলকে। আগামী দিনে তাকে জার্মানির ভবিষ্যতও বলছেন অনেকেই।

<p>ছোট বেলা থেকেই খেলাধুলায় খুব ভাল ছিলেন আলিশা। জুনিয়র হিসেবেই নিজের জাত চিনিয়েছিলেন আলিশা। ২০১৭ সালে ইউরোপিয়ান অ্যাথলেটিক্স আন্ডার টোয়েন্টি চ্যাম্পিয়নশিপে বড়সড় সাফল্য পেয়েছিলেন তিনি। রিলে ইভেন্টে জার্মানির জন্য সিলভার মেডেল জিতেছিলেন আলিশা স্মিড।<br />
 </p>

ছোট বেলা থেকেই খেলাধুলায় খুব ভাল ছিলেন আলিশা। জুনিয়র হিসেবেই নিজের জাত চিনিয়েছিলেন আলিশা। ২০১৭ সালে ইউরোপিয়ান অ্যাথলেটিক্স আন্ডার টোয়েন্টি চ্যাম্পিয়নশিপে বড়সড় সাফল্য পেয়েছিলেন তিনি। রিলে ইভেন্টে জার্মানির জন্য সিলভার মেডেল জিতেছিলেন আলিশা স্মিড।
 

<p>বর্তমানে তার লক্ষ্য ২০২১ টোকিও অলিম্পিক। ইতিমধ্যেই লকডাউন পর্ব মিটতে দিন রাত এক করে চলছে অনুশীলন। তার রূপে দুনিয়া কাহিল হলেও, বিশ্বের সব থেকে বড় ক্রীড়া মঞ্চে এবার নিজেকে মেলে ধরতে বদ্ধপরিকর আলিশা। তাকে ঘিরে নতুন করে স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছে গোটা জার্মানিও।<br />
 </p>

বর্তমানে তার লক্ষ্য ২০২১ টোকিও অলিম্পিক। ইতিমধ্যেই লকডাউন পর্ব মিটতে দিন রাত এক করে চলছে অনুশীলন। তার রূপে দুনিয়া কাহিল হলেও, বিশ্বের সব থেকে বড় ক্রীড়া মঞ্চে এবার নিজেকে মেলে ধরতে বদ্ধপরিকর আলিশা। তাকে ঘিরে নতুন করে স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছে গোটা জার্মানিও।
 

<p>২০২০ টোকিয়ো অলিম্পিক্সে দেখা যাবে আলিশা স্মিডকে। অলিম্পিক্সে ২০০ মিটার, ৪০০ মিটার এবং ৮০০ মিটারের ট্র্যাক ইভেন্টে অংশ নিতে দেখা যাবে তাঁকে। সেখানে সাফল্য পাওয়ার লক্ষ্যেই দিন রাত এক করে খাটছেন জার্মানির এই রূপসী  অ্যাথলিট।<br />
 </p>

২০২০ টোকিয়ো অলিম্পিক্সে দেখা যাবে আলিশা স্মিডকে। অলিম্পিক্সে ২০০ মিটার, ৪০০ মিটার এবং ৮০০ মিটারের ট্র্যাক ইভেন্টে অংশ নিতে দেখা যাবে তাঁকে। সেখানে সাফল্য পাওয়ার লক্ষ্যেই দিন রাত এক করে খাটছেন জার্মানির এই রূপসী  অ্যাথলিট।
 

<p>ইন্ডোর ট্র্যাকে তাঁর রেকর্ড যথেষ্ট ভালো। ৮০ মিটার এবং ১০০ মিটার ট্র্যাক ইভেন্টে বরাবরই এক নম্বরে নিজের নাম তুলেছেন এই জার্মানি তারকা। আর সেই রেকর্ড থেকেই একটা বিষয় পরিষ্কার যে, টোকিও অলিম্পিক্সেও জার্মানিকে নিরাশ করবেন না আলিশা ! প্রতি বছর জার্মানির হয়ে ৪x৪০০ মিটার রিলে ইভেন্টেও নিয়মিত অংশগ্রহণ করেন ২১ বছরের উঠতি এই অ্যাথলিট।<br />
 </p>

ইন্ডোর ট্র্যাকে তাঁর রেকর্ড যথেষ্ট ভালো। ৮০ মিটার এবং ১০০ মিটার ট্র্যাক ইভেন্টে বরাবরই এক নম্বরে নিজের নাম তুলেছেন এই জার্মানি তারকা। আর সেই রেকর্ড থেকেই একটা বিষয় পরিষ্কার যে, টোকিও অলিম্পিক্সেও জার্মানিকে নিরাশ করবেন না আলিশা ! প্রতি বছর জার্মানির হয়ে ৪x৪০০ মিটার রিলে ইভেন্টেও নিয়মিত অংশগ্রহণ করেন ২১ বছরের উঠতি এই অ্যাথলিট।
 

<p>জার্মানির এই উঠতি ট্র্যাক স্টারের গণ্ডি কেবলমাত্র অ্যাথলেটিক্সের দুনিয়াতেই সীমাবদ্ধ নয়। আলিশিয়ার পপুলারিটি এখন খেলার থেকেও বেশি তাঁর সৌন্দর্যের জন্য। এত কম বয়সে নামের পাশে জুড়ে গিয়েছে বিশ্বের সব থেকে সেক্সিয়েস্ট অ্যাথলিটের তকমা। <br />
 </p>

জার্মানির এই উঠতি ট্র্যাক স্টারের গণ্ডি কেবলমাত্র অ্যাথলেটিক্সের দুনিয়াতেই সীমাবদ্ধ নয়। আলিশিয়ার পপুলারিটি এখন খেলার থেকেও বেশি তাঁর সৌন্দর্যের জন্য। এত কম বয়সে নামের পাশে জুড়ে গিয়েছে বিশ্বের সব থেকে সেক্সিয়েস্ট অ্যাথলিটের তকমা। 
 

<p><br />
মাত্র ২১ বছর বয়সে এই তকমা পাওয়া মুখের কথা নয়। আর এই তকমা সে নিজেকে নিজে দেয়নি।  বা সোশ্যাল মিডিয়াও দেয়নি। এই তকমা তাকে দিয়েছে তার মন কারা রূপ, বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম ও তার বিশ্ব জুড়ে ফ্যানেরা।<br />
 </p>


মাত্র ২১ বছর বয়সে এই তকমা পাওয়া মুখের কথা নয়। আর এই তকমা সে নিজেকে নিজে দেয়নি।  বা সোশ্যাল মিডিয়াও দেয়নি। এই তকমা তাকে দিয়েছে তার মন কারা রূপ, বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যম ও তার বিশ্ব জুড়ে ফ্যানেরা।
 

<p><br />
নামী নামী মিডিয়া হাউজগুলির শিরোনামে একপ্রকার নিয়ম করেই রোজ উঠে আসছে আলিশার নাম। সংবাদপত্র থেকে শুরু করে ম্যাগাজিন সর্বত্র কভারে কেবলই আলিশার ছবি। বাস্টেড কভারেজই  মূলত তাঁকে বিশ্বের সেক্সিয়েস্ট অ্যাথলিট তকমা দিয়েছে।<br />
 </p>


নামী নামী মিডিয়া হাউজগুলির শিরোনামে একপ্রকার নিয়ম করেই রোজ উঠে আসছে আলিশার নাম। সংবাদপত্র থেকে শুরু করে ম্যাগাজিন সর্বত্র কভারে কেবলই আলিশার ছবি। বাস্টেড কভারেজই  মূলত তাঁকে বিশ্বের সেক্সিয়েস্ট অ্যাথলিট তকমা দিয়েছে।
 

<p>সোশ্যাল মিডিয়াতেও আলিশার কামাল চমকপ্রদ। ইনস্টাগ্রামে মাত্র ৪০০-র মত ছবি পোস্ট করেছেন আলিশা। কিন্তু তার ফলোয়ারের সংখ্যা দেখে মাথায় হাত দেওয়ার জোগার বিশ্বের তাবড় তাবড় অভিনেতা, অভিনেত্রীদেরও।  ইনস্টাগ্রামে এই মুহূর্তে তাঁর ফলোয়ার  প্রায় ৯ লক্ষ।<br />
 </p>

সোশ্যাল মিডিয়াতেও আলিশার কামাল চমকপ্রদ। ইনস্টাগ্রামে মাত্র ৪০০-র মত ছবি পোস্ট করেছেন আলিশা। কিন্তু তার ফলোয়ারের সংখ্যা দেখে মাথায় হাত দেওয়ার জোগার বিশ্বের তাবড় তাবড় অভিনেতা, অভিনেত্রীদেরও।  ইনস্টাগ্রামে এই মুহূর্তে তাঁর ফলোয়ার  প্রায় ৯ লক্ষ।
 

<p>ইনস্টা গ্রামে তার বিকিনি পরিহত  ছবি, অনুশীলনের ছবি, ব্যাক্তিগত জীবনের কিছু মুহূর্তের ছবি রীতিমত ঝড় তুলে দেয় তার ফলোয়ারদের মনে। তাই তো প্রতিদিন লাফিয়ে  লাফিয়ে বাড়ছে তার ফলোয়ারের সংখ্যা।</p>

ইনস্টা গ্রামে তার বিকিনি পরিহত  ছবি, অনুশীলনের ছবি, ব্যাক্তিগত জীবনের কিছু মুহূর্তের ছবি রীতিমত ঝড় তুলে দেয় তার ফলোয়ারদের মনে। তাই তো প্রতিদিন লাফিয়ে  লাফিয়ে বাড়ছে তার ফলোয়ারের সংখ্যা।

<p>বর্তমান সময়ে স্পনসর পেতে কালঘাম ছুটে যায় অ্যাথলিটদের। কিন্তু আলিশার রূপের কারণেই তার পেছনে ঘুরঘুর করছে বিশ্বের তাবড় তাবড় কোম্পানি। দীর্ঘ তিন বছরেরও বেশি সময় ধরে স্পনসরার হিসেবে নামী ব্র্যান্ড পুমাকে পাশে পেয়েছেন জার্মানির এই সুন্দরী অ্যাথলিট।<br />
 </p>

বর্তমান সময়ে স্পনসর পেতে কালঘাম ছুটে যায় অ্যাথলিটদের। কিন্তু আলিশার রূপের কারণেই তার পেছনে ঘুরঘুর করছে বিশ্বের তাবড় তাবড় কোম্পানি। দীর্ঘ তিন বছরেরও বেশি সময় ধরে স্পনসরার হিসেবে নামী ব্র্যান্ড পুমাকে পাশে পেয়েছেন জার্মানির এই সুন্দরী অ্যাথলিট।
 

<p>তবে শুধু রূপ দিয়েই বিশ্বকে মাতিয়ে রাখাই লক্ষ্য নয় আলিশার। অ্যাথলিট জগতে নিজের নাম আরও উজ্জ্বল করতে চান তিনি। অলিম্পিকে পদক জেতাই স্বপ্ন তার। আলিশা স্মিডের সাফল্যের কামনা করছেন জার্মানি তথা বিশ্ব জুড়ে তার অনুগামীরা।</p>

তবে শুধু রূপ দিয়েই বিশ্বকে মাতিয়ে রাখাই লক্ষ্য নয় আলিশার। অ্যাথলিট জগতে নিজের নাম আরও উজ্জ্বল করতে চান তিনি। অলিম্পিকে পদক জেতাই স্বপ্ন তার। আলিশা স্মিডের সাফল্যের কামনা করছেন জার্মানি তথা বিশ্ব জুড়ে তার অনুগামীরা।

loader