ঘরে ফিরেছে নাগা বাহিনী, এবার পুরুলিয়ায় মাওবাদী দমনে সিআরপিএফ

First Published 25, Sep 2020, 5:23 PM

পুরুলিয়ার অযোধ্য়া পাহাড় জঙ্গলে টানা দশ বছর ধরে মাওবাদী দমনে মোতায়েন ছিল নাগা বাহনী। সম্প্রতী, বাড়ি ফিরেছেন নাগা বাহিনীর জওয়ানরা। এবার থেকে পুরুলিয়ায় জঙ্গল পাহারায় থাকছে সেন্ট্রাল রিজার্ভ পুলিশ ফোর্স। শুক্রবার সকালে চার কোম্পানির সিআরপিএফ জওয়ান পুরুলিয়া স্টেশনে নামে। আগে ছয়টি ক্যাম্পে নাগা বাহিনী ছিল সেখানেই থাকবেন নাগা বাহিনীর জওয়ানরা। 

<p>পুরুলিয়া নতুন করে মাওবাদী আতঙ্ক। একুশের বিধানসবা ভোটের আগে মাওবাদী তৎপরতা রুখতে নিরাপত্তার উপর জোর দেওয়া হয়েছে&nbsp;। গোয়েন্জদা রিপোর্টে&nbsp;জঙ্গলমহলে মাওবাদী গতিবিধি নিয়েও চাঞ্চল্যকর তথ্য উঠে এসেছে। অযোধ্যা পাহাড় থেকে ১০ বছর পর নাগা বাহিনী জওয়ার নাগাল্যান্ডে ফিরেছে। এবার থেকে তাঁদের জায়গায় মাওবাদী দমনে সক্রিয় ভূমিকা নেবে সিআরপিএফ।</p>

পুরুলিয়া নতুন করে মাওবাদী আতঙ্ক। একুশের বিধানসবা ভোটের আগে মাওবাদী তৎপরতা রুখতে নিরাপত্তার উপর জোর দেওয়া হয়েছে । গোয়েন্জদা রিপোর্টে জঙ্গলমহলে মাওবাদী গতিবিধি নিয়েও চাঞ্চল্যকর তথ্য উঠে এসেছে। অযোধ্যা পাহাড় থেকে ১০ বছর পর নাগা বাহিনী জওয়ার নাগাল্যান্ডে ফিরেছে। এবার থেকে তাঁদের জায়গায় মাওবাদী দমনে সক্রিয় ভূমিকা নেবে সিআরপিএফ।

<p>শুক্রবার পুরুলিয়া স্টেশনে নামে সিআরপিএফের চার কোম্পানির একটি দল। পুরুলিয়ার যে ছয়টি ক্যাম্পে নাগা জওয়ানরা ছিলেন, এবার থেকে সেখানেই থাকবেন সিআরপিএফ জওয়ানরা। পুরুলিয়ার জঙ্গলমহলে মাওবাদী দমনে মোতায়েন থাকছে সিআরপিএফ ও কোবরা বাহিনী।</p>

শুক্রবার পুরুলিয়া স্টেশনে নামে সিআরপিএফের চার কোম্পানির একটি দল। পুরুলিয়ার যে ছয়টি ক্যাম্পে নাগা জওয়ানরা ছিলেন, এবার থেকে সেখানেই থাকবেন সিআরপিএফ জওয়ানরা। পুরুলিয়ার জঙ্গলমহলে মাওবাদী দমনে মোতায়েন থাকছে সিআরপিএফ ও কোবরা বাহিনী।

<p><br />
সিআরপিএফ জওয়ানরা ক্য়াম্পে পৌঁছোনোর আগেই তাঁদের করোনা সুরক্ষার বিষয়টির উপর বিশেষ নজর দেওয়া হয়। জওয়ানদের হাতে তুলে দেওয়া হয় মাস্ক ও স্যানিটাইজার।&nbsp;<br />
&nbsp;</p>


সিআরপিএফ জওয়ানরা ক্য়াম্পে পৌঁছোনোর আগেই তাঁদের করোনা সুরক্ষার বিষয়টির উপর বিশেষ নজর দেওয়া হয়। জওয়ানদের হাতে তুলে দেওয়া হয় মাস্ক ও স্যানিটাইজার। 
 

<p>পুরুলিয়ার জঙ্গলে মাওবাদী দমনে টানা দশ বছর ধরে মোতায়েন ছিল নাগা বাহিনীর জওয়ানরা। বলরামপুর থানার কুমারী কানন, পাথর বাঁধ। বাগমুণ্ডির হিলটপ ও পিপিএসসি। আড়শা থানা এবং এবং কোটশিলা থানার মুরগুমা। নাগা বাহিনী থাকা ওই ক্যাম্প গুলিতেই থাকবেন সিআরপিএফ জওয়ানরা।<br />
&nbsp;</p>

পুরুলিয়ার জঙ্গলে মাওবাদী দমনে টানা দশ বছর ধরে মোতায়েন ছিল নাগা বাহিনীর জওয়ানরা। বলরামপুর থানার কুমারী কানন, পাথর বাঁধ। বাগমুণ্ডির হিলটপ ও পিপিএসসি। আড়শা থানা এবং এবং কোটশিলা থানার মুরগুমা। নাগা বাহিনী থাকা ওই ক্যাম্প গুলিতেই থাকবেন সিআরপিএফ জওয়ানরা।
 

<p><br />
পুরুলিয়া জেলা পুলিশ সূত্রে খবর, নাগা বাহিনীর ক্যাম্প কুমারী কানন ও মুরগুমা ক্যাম্পে থাকবেন সিআরপিএফ জওয়ানরা। বাকি ক্যাম্প গুলিতে মোতায়েন থাকবে রাজ্য পুলিশের সশস্ত্র বাহিনী।</p>


পুরুলিয়া জেলা পুলিশ সূত্রে খবর, নাগা বাহিনীর ক্যাম্প কুমারী কানন ও মুরগুমা ক্যাম্পে থাকবেন সিআরপিএফ জওয়ানরা। বাকি ক্যাম্প গুলিতে মোতায়েন থাকবে রাজ্য পুলিশের সশস্ত্র বাহিনী।

loader