রান্না করতে ভালোবাসেন এমন মানুষ বহু আছেন তবে মাত্র ১ ঘন্টার মধ্যে ৪৫-৫০ রকম পদ রান্না করা কি সম্ভব! ভাবছেন, এটা কোনও ভাবেই হতে পারে না। এই ঘটনাই বিশ্বজুড়ে আলোড়ন সৃষ্টি করেছে। দক্ষিণ ভারতীয় এক কিশোরী এই অসম্ভব কে সম্ভব করে দেখিয়েছে। চেন্নাইয়ের বাসিন্দা লক্ষ্মী সাই শ্রী কেবল বিশ্বজুড়েই রান্নার প্রতি তার দখল প্রমাণ করেননি, ইউনিকো বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসেও তার নাম উল্লেখ করেছে তালিকায়। লক্ষ্মী সাঁই বছর ১৩-১৪ কিশোরী মাত্র ৫৮ মিনিটের মধ্যে ৪৬ টি পদ তৈরি করে এই বিশ্ব রেকর্ড করেছে। 

আরও পড়ুন- শীতের দুপুরে গরম গরম ভাতে সুস্বাদু ভাপা রুই, ভুড়িভোজ জমাতে রইল এই দুর্দান্ত রেসিপি

এই বিশ্ব রেকর্ড করা লক্ষ্মী তার এই কৃতিত্ব সম্পর্কে জানিয়েছে, যে তিনি তার মায়ের থেকে রান্নার প্রশিক্ষণ নিয়েছিলেন এবং প্রথম থেকেই রান্নার প্রতি আগ্রহী ছিলেন। এই সম্মান পেয়ে সে খুব খুশি। অন্যদিকে লক্ষ্মীর মা এন কালয়মঙ্গল বলেছেন যে, লক্ষ্মী লকডাউনের সময় রান্না শিখতে শুরু করেছিল। রান্নার প্রতি ওর এত আগ্রহ দেখে লক্ষ্মীর বাবা তাকে বিশ্ব রেকর্ডের এই প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে বলেছিলেন। লক্ষ্মীর মা আরও জানিয়েছে যে, আমি লকডাউনের সময় বাড়িতে তামিলনাড়ুর ঐতিহ্যবাহী খাবারগুলি তৈরি করতাম। এই সময়ে আমার মেয়েও এতে আগ্রহ দেখায় এবং রান্না শিখতে শুরু করে। রান্নার প্রতি তাঁর আগ্রহ, উৎসাহ এবং প্রতিভা দেখে, তার বাবা তাকে বিশ্ব রেকর্ডে অংশ নিতে উত্সাহিত করেছিল।

আরও পড়ুন- মোবাইল গেমে বুঁদ ৬ বছরের শিশু, মায়ের ক্রেডিট কার্ড থেকে ওড়াল ১২ লক্ষ টাকা

 

লক্ষ্মীর বাবা এই প্রতিযোগীতার বিষয়ে খোঁজ খবর নিয়ে জানতে পারেন, লক্ষ্মীর আগে কেরালার এক মেয়ে যার নাম সানভি ৩০ টি পদ তৈরি করেছিল এবং রেকর্ড করেছিলেন। তারপরেই লক্ষ্মী এই রেকর্ডটি ভাঙার পণ নিয়েছিলেন। লক্ষ্মী তাঁর মেধা ও কঠোর পরিশ্রমের শক্তি অর্জন করেই, একটি নতুন রেকর্ড তৈরি করে বিশ্ব জুড়ে দেশ ও তামিলনাড়ুর নাম উজ্জ্বল করেছে।