মহারাষ্ট্রের বিধানসভা নির্বাচন ২০১৯-এর ইস্তেহারে বিজেপি বিনায়াক দমোদর সাভারকরকে ভারত রত্ন উপাধি দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। সাভারকর আদৌ ভারত রত্ন পাওয়ার যোগ্য কি না, সেই নিয়ে জোর বিতর্ক শুরু হয়েছে। সেই বিতর্কে বেশ খানিকটা ঘি দিয়ে  টুইট করলেন অভিনেত্রী তথা পরিচালক অপর্ণা সেন। অপর্না সেন টুইটে পরোক্ষে সাভারকরকে মরণোত্তর ভারতরত্ন দেওয়া কতটা  সঠিক সিদ্ধান্ত সেই নিয়ে প্রশ্ন ছুড়ে দিয়েছেন। 

টুইটে অপর্ণা সেন লিখেছেন, ' সাভারকরকে মরণোত্তর ভারতরত্ন দেওয়া হবে? কিন্তু তিনি সেলুলার জেল থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্য চারটি ক্ষমা প্রার্থনা করে ব্রিটিশ সরকারের কাছে আবেদন করেছিলেন বলেই আমার ইতিহাসের জ্ঞান। আমি কি তাহলে ইতিহাস ভুলে গেছি? আমার মনে হল বলে জিজ্ঞাসা করলাম।' অপর্ণা সেন টুইটে  বিজেপিকে যে পরোক্ষে কটাক্ষ করছেন তার আর বলার অপেক্ষা রাখে না। বিজেপির ইস্তেহারে সাভারকরকে মরণোত্তর ভারত রত্ন দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেওয়ার পর থেকেই এই নিয়ে দেশ জুড়ে সমালোচনার ঝড় বয়ে গেছে। সাভারকারের বিরুদ্ধে  বিরোধীরা একাধিক অভিযোগ নিয়ে এসেছেন। 

আন্দামান জেল থেকে মুক্তির জন্য যে ইংরেজ সরকারের কাছে আবেদন করেছিলেন, তা আত্মজীবনীতে সাভারকর স্বীকার করে নিয়েছিলেন। আত্মজীবনীতে সাভারকর দাবি করেছিলেন, তিনি যা করেছিলেন ব্রিটিশ আইনের মধ্য থেকে করেছিলেন। তবে তিনি ক্ষমা চাওয়া বা ব্রিটিশ সরকারের মন পাওয়ার কোনও চেষ্টা করেননি বলেও দাবি করেছিলেন বইটিতে। যদিও আত্মজীবনে সাভারকরের এই দাবি মেনে নিতে পারেননি বিরোধীরা। তাঁদের দাবি, আন্দামান জেল থেকে মুক্তি পাওয়ার পর তিনি ব্রিটিশ সরকারকে বিভিন্ন ভাবে  সহায়তা করেছিলেন এবং নেতাজির বিরোধিতা করেছিলেন।