একদিকে যথন রাজনৈতিক অবসরের কথা ঘোষণা করছেন নীতিশ কুমার অন্যদিকে বিহারের বাসিন্দাদের একটি খোলা চিঠি লেখেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। আর সেই চিঠিতেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন বিহারের উন্নয়নের জন্য নীতিশ কুমারের সরকারকেই তিনি চাইছেন। পাশাপাশি তিনি বলেন বিহারের জন্যই এনডিএ-র প্রয়োজন রয়েছে।তিনি আরও বলেন চলতি বিধানসভা নির্বাচনে বিহার জাতপাতের ভিত্তিতে ভোট দিচ্ছে না। উন্নয়নের জন্যই ভোট দিচ্ছে বিহার।  এই ভোট কোনও মিথ্যা প্রচিশ্রুতির জন্য নয়। এই ভোট হচ্ছে সুশাসন আর উন্নয়নশীল সরকারের জন্য। 

চার পাতার এই চিঠিতে প্রধানমমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী মূলত এনডিএ ও নীতিশ কুমারের প্রশাংসা করেছেন। পাশাপাশি বিহারের উন্নয়নের ওপরে জোর দিয়েছেন। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেন, যুবক, বৃদ্ধ, দরিদ্র অথবা কৃষক সকলেই তাঁদের আর্শীবাদ করেছেন। যা দেখে বোঝা যায় আধুনিকতা আর উন্নয়ন যজ্ঞে তাঁরা সামিল হয়েছেন। তাঁদের এই একরোখা মনোভাব গণতন্ত্রের জন্য মঙ্গলদায়ক বলেও জানিয়েছেন তিনি। 

 
বিহারের বাসিন্দাদের উদ্দেশ্যে লেখা চিঠিতে প্রধানমন্ত্রী বিহারের উন্নয়েনের জন্য কী কী কাজ করেছেন তারও একটি তালিকা পেশ করেছেন। তিনি বলেন শিক্ষা স্বাস্থ্য আইনশৃঙ্খলার পরিস্থিতি উন্নয়নে নীতিশ কুমারের নেতৃত্বাধীন এনডিএ সরকার খুব ভালো কাজ করেছে।  যা আগামী দিনে উন্নত বিহার তৈরিতে যথেষ্ট কার্যকরী ভূমিকা গ্রহণ করবে। প্রত্যেক  দরিদ্র মানুশের জন্য বাড়ি, শৌচাগার, পানীয় জলের সুবন্দোবস্ত করা হয়েছে। যা সম্ভব হয়েছে নীতিশ কুমারের সরকারের জন্য। 

শনিবার উত্তর বিহারের ১৯টি জেলার ৭৮টি আসনে ভোটগ্রহণ হবে। বৃহস্পতিবারই ছিল প্রচারের শেষ দিন। ভোট প্রচার শেষ হওয়ার কিছু সময়ই আগেই সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রধানমন্ত্রী বিহারবাসীর উদ্দেশ্যে চার পাতার এই চিঠিটি লেখেন। কৌশলে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমেই কৌশলে ভোট প্রচার সারলেন তিনি।