রেলের জন্য আর ক্ষতির বোঝা বাড়ানো নয়। বরং রেলের থেকে আয় বাড়ানোর পথেই এবার এগোবে কেন্দ্রীয় সরকার। কেন্দ্রীয় বাজেট পেশ করতে গিয়ে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ রেল নিয়ে যেটুকু পরিকল্পনার কথা বলেছেন, তাতে রেলে বেসরকারি বিনিয়োগ বৃদ্ধি দিকেই ইঙ্গিত করা হয়েছে। 

কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী এ দিন জানিয়েছেন, দেশে আরও সাতাশ হাজার কিলোমিটার রেলপথের বৈদ্যুতিকরণ করা হবে। এর পাশাপাশি পর্যটন কেন্দ্রগুলিতে যাতায়াত সহজ করার জন্য আরও বেশি করে তেজস-এর মতো ট্রেন চালু করা হবে। সৌর শক্তি দিয়ে ট্রেন চালানোর জন্য রেল লাইন লাগোয়া খালি জমিতে সরকারি- বেসরকারি যৌথ উদ্যোগে সৌর বিদ্যুৎ কেন্দ্র গড়ে তোলার কথাও জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী। 

আরও পড়ুন- ঐতিহাসিক পদক্ষেপ, বিরোধীদের অভিযোগ উড়িয়ে বাজেটে জিএসটি সওয়াল নির্মলার

এর পাশাপাশি মুম্বাই আহমেদাবাদ হাই স্পিড ট্রেন করিডর প্রকল্পে সরকার আরও জোর দেবে বলেও এ দিন জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী। একই ভাবে বেঙ্গালুরুর সাবার্বান রেল প্রকল্পের জন্য ১৮০০০ হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করা হবে বলে জানিয়েছেন সীতারমণ। উত্তর পূর্ব ভারতে পিপিপি মডেলেই কৃষি সামগ্রী নিয়ে যাওয়ার জন্য একটি ট্রেন চালু করার কখাও ঘোষণা করেছেন অর্থমন্ত্রী। 

তবে শুধু রেল নয়, সড়ক যোগাযোগ ক্ষেত্র থেকেও আয় বাড়াতে চাইছে সরকার। আগামী এক বছরের মধ্যে ৬ হাজার কিলোমিটার জাতীয় সড়ক বেসরকারি হাতে দিয়ে দেওয়া হবে। এর থেকে সরকারের প্রায় চার হাজার কোটি টাকা আয় হবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী।