গত সোমবার ভোর রাতে চাঁদের উদ্দেশে পাড়ি দেওয়ার পরিকল্পনা ছিল চন্দ্রযান-২-এর। কিন্তু শেষ মুহূর্তে যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে চন্দ্রযান-২-এর উৎক্ষেপণ বাতিল করে দেওয়া হয়। তারপর থেকে সাধারণ মানুষের মনে কৌতুহল তৈরি হয়েছিল চন্দ্রযান-২ আবার কবে উৎক্ষেপণ করা হবে সেই নিয়ে। মনে করা হচ্ছিল চলতি মাসের শেষেই ফের উৎক্ষেপণ করা হবে চন্দ্রযান-২-এর। অবশেষে সমস্ত জল্পনার অবসান ঘটিয়ে ঘোষণা করা হল চন্দ্রযান-২-এর উৎক্ষেপণের দিন।

ভারতের মহাকাশ গবেষণা ইসরোর তরফ থেকে এদিন টুইট করে জানানো হয়েছে, চন্দ্রযান-২ এর উৎক্ষেপনের দিন ঘোষণা করা হয়েছে আগামী সোমবার অর্থাৎ ২২ জুলাই। দিনটি সোমবার হলেও এবার বদলানো হল সময়। মাঝরাতে নয়, এবার চন্দ্রযান উৎক্ষেপণ করা হবে বিকেল ২.৪৩ মিনিট। 

ভারতের দ্বিতীয় চন্দ্রাভিযানে নেতৃত্ব দিচ্ছেন এই নারীবাহিনী ও এক বাঙালি, জানুন তাঁদের কথা

এবারের চন্দ্রাভিযানের অন্যতম লক্ষ্য ছিল, চাঁদের দক্ষিণ মেরুর আবিস্কার করা, যা আগে কখনও দেখেননি বিজ্ঞানীরা। কিন্তু গত সোমবার উৎক্ষেপণের মাত্র ৫৬ মিনিট ২৪ সেকেন্ড আগে চন্দ্রযানের লঞ্চ ভেহিকেলে ধরা পড়ে একটি বিভ্রাট। ইসরোর তরফে জানানো হয়েছিল, কোনওরকম ঝুঁকি না নিতেই চন্দ্রযান-২-এর উৎক্ষেপণ আপাতত স্থগিত রাখা হয়েছে। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে সেপ্টেম্বরের প্রথম দিকেই চাঁদের মাটি স্পর্শ করত চন্দ্রযান-২। কিন্তু সেই পরিকল্পনার মুখে বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছিল সেই যান্ত্রিক গোলযোগ। প্রসঙ্গত, ভারতের দ্বিতীয় চন্দ্রাভিযান এভাবে ব্যর্থ হওয়ায় আশাহত হয়েছিল গোটা দেশ। তবুও সকলের এটাই আশা ছিল যে, আজ না হোক কাল ফের চাঁদের মাটিতে পাড়ি জমাবে চন্দ্রযান-২। অবশেষে সমস্ত জল্পনার অবসান ঘটিয়ে চাঁদের উদ্দেশে ফের যাত্রা করতে চলেছে চন্দ্রযান-২।