কথায় আছে জাতে মাতাল তালে ঠিক। ঠিক তেমনই ছবি ধরা পড়ল কেরলে। মদের দোকানের সামনে লম্বা লাইনে।  কিন্তু নেই কোনও ঠাসাঠাসি।  করোনাভাইরাস সংক্রমণ রুখতে প্রত্যেকেই বজায় রেখেছেন সামাজিক দূরত্ব। বেশ কিছুটা দূরে দূরে দাঁড়িয়ে রয়েছেন তাঁরা। প্রথমে দেখলে কিছুতেই লাইন বলে মনে হবে না। কিন্তু কিছুক্ষণ ভিডিওটা দেখলেই বোঝাযাবে লাইনেই দাঁড়িয়ে রয়েছেন ওঁরা। কেরলের কোনও একটি মদের দোকানের সামনে থেকে তোলা হয়েছে ভিডিওটি। দোকান কর্তৃপক্ষও রীতিমত সচেতন করোনা মোকাবিলায়। ক্রেতারা যাতে নূন্যতম দূরত্ব বজায় রাখে তার জন্য প্রায় এক মিটার ছাড়া ছাড়া চক বা চুন দিয়ে দাগ কাটাও হয়েছে। রাখা হয়েছে একজন পর্যবেক্ষকও। অধিকাংশ ক্রেতাই ব্যবহার করছেন মাস্ক। কেরল থেকেই ছবিটি সোস্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে। আর এক মিনিট ষোলো সেকেন্ডের এই ভিডিও নেটিজেনদের বাহবাও কুড়িয়েছে। 

আরও পড়ুনঃ ৭ বছর পর শান্তি পেয়েছে মেয়ের আত্মা, বাঁধ মানল না বালিয়াও

আরও পড়ুনঃ আশাদেবীর সঙ্গে রাত জাগল রাজধানীও, ফাঁসি হতেই জেলের বাইরে উৎসবের মেজাজ

প্রথম থেকেই করোনা আক্রান্তের সন্ধানা পাওয়া গিয়েছিল কেরলে। এখনও পর্যন্ত এই রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা ২৫। বেশ কয়েকজন সুস্থ হয়ে বাড়িতেও ফিরে গেছেন। এই অবস্থায় পরিস্থিতি মোকাবিলায় একটুও গাফিলতি করতে রাজি নয় কেরল সরকার। বাড়ি থেকে বেরোনর ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি না হলেও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার আবেদন জানান হয়েছে নাগরিকদের কাছে। আর সরকারের সেই আবেদনে সাড়া দিয়ে মদের দোকানের ক্রেতারাও সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখেই লাইনে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। 

করোনার মত ভয়ঙ্কর মহামারীর মোকাবিলায়  কেরল সরকার ২০ হাজার কোটি প্যাকেজ ঘোষণা করেছে। বৃহস্পতিবার রাজ্যে নতুন করে আরও এক করোনা আক্রান্তের সন্ধান পাওয়া গেছে। আক্রান্ত ব্যক্তি দুবাই থেকে ফিরেছেন। তবে এর আগে বেশ কয়েক জন আক্রান্ত চিকিৎসার পর সুস্থ হয়ে বাড়িও ফিরে গেছে। পরিস্থিতি মোকাবিলায় রাজ্যসরকার সবরকম সাহায্য করবে বলেও জানিয়েছে।