Asianet News Bangla

প্রেমের টানে ফের ঘরছাড়া, আরও একবার কনের মাকে নিয়ে পালালেন বরের বাবা

 

  • ফের পালালেন হবু বেয়াই-বেয়াইন
  • এক বছর আগে ছেলে-মেয়র মধ্যে বিয়ে ঠিক হয়
  • বিয়ের আগে মেয়ের মাকে নিয়ে পালিয়েছিলেন ছেলের বাবা
  • দুই সপ্তাহ বেপাত্তা থাকার পর ফিরে এসেছিলেন দু'জনে
Couple who ran away before kids wedding elope again
Author
Kolkata, First Published Mar 3, 2020, 9:32 AM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

মাস খানেক আগে পালিয়ে গিয়ে শোরগোল ফেলে দিয়েছিলেন মধ্যবয়সী এক পুরুষ ও মহিলা। আপনার মনে প্রশ্ন আসতে পারে, তা সেতো অনেকেই তো পালান, তা নিয়ে অত হইচইয়ের কী আছে। বৈশিষ্ট্য এখানেই ওই মাঝবয়সী পুরুষটির ছেলের সঙ্গে বিয়ে ঠিক হয়েছিল মহিলার মেয়ের। অর্থাৎ সম্পর্কে বেয়াই-বেয়াইন হতে যাচ্ছিলেন দু'জনে। কিন্তু ছেলে-মেয়ের বিয়ের আগেই পালিয়ে শোরগোল ফেলে দিয়েছিলেন দু'জনে। তবে মাস খানেক আগে দু'জনেই যে যার বাড়ি ফিরে এসেছিলেন। এবার শোনা যাচ্ছে পুরনো প্রেমের টানে ফের একবার নাকি মেয়ের মাকে নিয়ে চম্পট দিয়েছেন বরের বাবা।

আরও পড়ুন: ঝাড়খণ্ডে আইনের ছাত্রীকে গণধর্ষণ, ১১ জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিল আদালত

চলতি বছর জানুয়ারিতেই গুজরাতের সুরাতের বাসিন্দা হিম্মত পাণ্ডবের ছেলের সঙ্গে নভসারির বাসিন্দা শোভনা রাভালের বিয়ের কথা ছিল। পাত্র-পাত্রী নিজেরই একে অপরকে পছন্দ করেন। দুই পরিবারের তরফে এরপর বিয়ে ঠিক হয়। কিন্তু বিয়ের দিন কয়েক আগে থেকে উধাও হয়ে যান বস্ত্র ব্যবসায়ী হিম্মত। খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না শোভনারও। পরে জানা যায় আসল কারণ। কলেজের সময় প্রেম ছিল দুজনের। যদিও সেই সম্পর্ক পরিণতি পায়নি। তাই ছেলে ও মেয়ের বিয়ের সম্বন্ধের জন্য যোগাযোগ হওয়ার পর প্রেমের টানে ঘরছাড়া হন দুজনে। প্রায় দুসপ্তাহ বেপাত্তা থাকার পর  কিছুদিন  আগে পরিবারের কাছে ফিরে এসেছিলেন শোভনা ও হিম্মত। তবে সেই সময় শোভনাকে আর মেনে নিতে চাননি স্বামী। তাই বাপের বাড়িতেই ছিলেন তিনি। এবার আবার নাকি খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না শোভনা ও হিম্মতকে।

আরও পড়ুন: নতুন কীর্তি বিজেপি বিধায়কের, ১০২ বছরের স্বাধীনতা সংগ্রামীকে বললেন পাক এজেন্ট

সূত্রের খবর, গত শনিবার নতুন করে বাড়ি ছেড়েছেন দুজনে। এবার নাকি একসঙ্গে সংসারও পেতেছেন তাঁরা। আত্মীয়দের সন্দেহ, পরিকল্পনা করেই এবার পালিয়েছেন দুজনে। পর্থমবার পালিয়ে যাওয়ার পর দুই পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় নিখোঁজের ডায়েরি করা হলেও এবার আর কোনও অভিযোগ করেননি তাঁরা। 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios