Asianet News BanglaAsianet News Bangla

স্ট্যাচু অফ ইউনিটি দেখতে গিয়ে বিপত্তি, রহস্যজনক ভাবে নিখোঁজ গোটা পরিবার

  • গত রবিবার স্ট্যাচু অফ ইউনিটি দেখতে যায় পরিবার
  • স্ত্রী, মা ও দুই সন্তানকে নিয়ে বেরিয়েছিলেন কল্পেশ পারমার
  • ছবি তুলে ফেসবুক ও হোয়াটসঅ্যাপে পোস্টও করেন
  • তারপর থেকেই নিখোঁজ হয়ে যায় গোটা পরিবার
Four missing after Statue of Unity visit found dead in canal
Author
Kolkata, First Published Mar 6, 2020, 2:15 PM IST
  • Facebook
  • Twitter
  • Whatsapp

পৃথিবীর সবচেয়ে বড় মূর্তি স্ট্যাচু অব ইউনিটি দেখতে গিয়েছিল এক গুজরাতি পরিবার। কিন্তু রহস্যজনক ভাবে ফেরার পথে নিখোঁজ হয়ে যায় গোটা পরিবার। এদের মধ্যে ৪ জনের খোঁজ পাওয়া গিয়েছে। একটি খালের মধ্যে থেকে উদ্ধার করা হয়েছে দেহগুলি।

জানা যাচ্ছে, গত পয়লা মার্চ  ভদোদরা থেকে নর্মদা জেলায় স্ট্যাচু অব ইউনিটি দেখতে গোটা পরিবার নিয়ে গিয়েছিলেন কল্পেশ পারমার। সঙ্গে ছিলেন তাঁর মা উষাদেবী, স্ত্রী তৃপ্তী এবং দুই সন্তান নিয়তি ও অথর্ভ। কিন্তু রহস্যজনক ভাবে ওই দিন সন্ধ্যা থেকেই গোটা পরিবারটির খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না।

আরও পড়ুন: স্ত্রীকে খুন করার দায় জেল খেটেছিলেন , ৭ বছর পর প্রেমিকের সঙ্গে খুঁজে পেলেন সহধর্মিনীকে

গোটা পরিবারের রহস্যজনক ভাবে এভাবে গায়েব হয়ে যাওয়ার ঘটনায় ধন্দে পরে যায় পুলিশ। ভদোদরা থেকে প্রায় ৩৫ কিলোমিটার দীরে একটি হোটেলের সিসিটিভি ক্যামেরায় পারমার পরিবারকে শেষবার দেখা যায়।  এদিকে দাভোইয়ের কাছে খালের মধ্যে একটি গাড়িকে দেখতে পান স্থানীয়রা। এরপর খবর পেয়ে দমকল গাড়িটিকে খাল থেকে তুলে আনে। সেখান থেকে ঘটনার ৪ দিন পর উদ্ধার হয় কল্পেশ, তার মা ও দুই সন্তানের নিথর দেহ। যদিও কল্পেশের স্ত্রী তৃপ্তীর এখনও কোন খোঁজ মেলেনি। 

আরও পড়ুন: সম্পর্ক ভাঙতে প্রেমিকাকে ধর্ষণ চিকিৎসক ছাত্রের, ভিডিও বানিয়ে ব্ল্যাকমেইল তরুণীকে

এদিকে পারমার পরিবারের আত্মীয়দের থেকে জানা যাচ্ছে নিজেদের গাড়িতে করেই সেদিন স্ট্যাচু অব ইউনিটি দেখতে বেরিয়েছিল তারা। সেখান থেকে নিজেদের ছবি তুলে ফেসবুক ও হোয়াটসঅ্যাপে পোস্টও করেন। প্রাথমিক ভাবে মনে করা হচ্ছে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাড়িটি রাস্তার পাশে খালে গিয়ে পড়ে। যদিও তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত কোনও সিদ্ধান্তে পৌঁছতে রাজি নয় পুলিশ। 
 

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios