চিনের সঙ্গে সীমান্ত নিয়ে চরম উত্তেজনার মধ্য়েই ভারতীয় সেনা গালওয়ান নদীর উপর বিতর্কিত সেতু নির্মাণের কাজ শেষ করল। বিতর্কিত, কারণ এই সেতুটিই চিনের প্রধান আপত্তির কারণ ছিল। গত সোমবার রাতে গালওয়ানের যে ১৪ নম্বর পেট্রোলিং পয়েন্টের কাছে চিনা সেনার সঙ্গে হাতাহাতিতে ২০ জন ভারতীয় সেনা শহিদ হয়েছিলেন, তার ঠিক কাছেই তৈরি করা হয়েছে এই ৬০ মিটার দীর্ঘ সেতু। ভারতীয় সেনার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে বৃহস্পতিবারই এই সেতু নির্মাণের কাজ শেষ হয়েছে।

এর আগে জানা গিয়েছিল ভারতীয় সেনাবাহিনী এই বছরের মধ্যেই দরবুক থেকে শৌক উপত্যকা হয়ে দৌলত বেগ ওল্ডি পর্যন্ত একটি ২৫৫ কিলোমিটার দীর্ঘ কৌশলগত রাস্তা নির্মাণের কাজ শেষ করতে চাইছে। সেই রাস্তারই অংশ এই সেতুটি। এই রকম মোট আটটি সেতু থাকছে এই সড়কপথে। রাস্তাটি নির্মাণ হয়ে গেলে লেহ উপত্যকা থেকে ভারতীয় নিরাপত্তা বাহিনীর দৌলত বেগ অল্ডিতে পৌঁছতে সময় লাগবে মাত্র ছয় ঘণ্টা।

গত প্রায় দুই দশক ধরেই এই রাস্তা তৈরির ভাবনা চিন্তা করছে ভারত সরকার। নরেন্দ্র মোদী ক্ষমতায় আসার পর থেকে এই রাস্তা নির্মাণে বিশেষ জোর দেওয়া হয়েছে। সম্প্রতি প্রতিরক্ষামন্ত্রীর অনুরোধে বিশেষ ট্রেনে বিহার থেকে নির্মাণকর্মীদের আনা হয়েছে। নির্মাণকর্মীদের আনা হচ্ছে বিশেষ বিমানেও। বৃহস্পতিবার যে সেতুটির নির্মাণকাজ সম্পূর্ণ হল, তা গালওয়ান উপত্যকার পেট্রোলিং পয়েন্ট ১৪-এর সঙ্গে শ্যোক নদীর উপত্যকার অঞ্চলগুলিকে যুক্ত করেছে। এই সেতুটি ওই কৌশলগত রাস্তার অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ অংশ।