বৃহস্পতিবার রাতেই ব্রিটেনকে পেছনে ফেলে বিশ্বের করোনা আক্রান্ত দেশের তালিকায় ৪ নম্বরে উঠে এসেছে ভারত। প্রতিদিনই দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা রেকর্ড গড়ছে। শনিবার সকালেও সেই ধারা অব্যাহত থাকল। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনা সংক্রমণের শিকার হলেন ১১,৪৫৮ জন। যা ভারতে দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যায় এখনও পর্যন্ত সর্বোচ্চ।

দেশ যে চলতি সপ্তাহেই ৩ লক্ষের গণ্ডি পেরোতে চলেছে তা বোঝা গিয়েছিল আগেই। স্বাস্থ্যমন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যান অনুযায়ী শনিবার সকালেই মোট আক্রান্তের সংখ্যায় ৩ লক্ষের গণ্ডি ছাপিয়ে গেল ভারত। বর্তমানে দেশে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৩ লক্ষ ৮ হাজার ৯৯৩। 

 

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা প্রাণ কেড়েছে ৩৮৬ জনের। ফলে বর্তমানে ভারতে করোনায় মৃতের সংখ্যা ৮৮৮৪। তবে এসবের মধ্যেই ভাল খবর এই নিয়ে টানা ৪ দিন দেশে মোট সক্রিয় রোগীর তুলনায় সুস্থ হয়ে ওঠে মানুষের সংখ্যা বেশি থাকল। এখনও পর্যন্ত দেশে করোনাকে জয় করেছেন ১ লক্ষ ৫৪ হাজার ৩৩০ জন। ফলে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ভারতে এখন ১ লক্ষ ৪৫ হাজার ৭৭৯।  এই অবস্থায় আক্রান্তের সংখ্যা লাগামছাড়া ভাবে বাড়তে থাকলেও স্বাস্থ্যমন্ত্রক দাবি করছে দেশে সুস্থতার হার বেড়েছে। বর্তমানে তা ৪৯.৪৭ শতাংশে পৌঁছেছে। 

মহারাষ্ট্রে আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়াল ১ লক্ষ, এবার বাংলাদেশ থেকে রেমডেসিভির আনাচ্ছেন উদ্ধব

করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় অবহেলা করেছে সরকার, দীর্ঘ জেরার সম্মুখীন স্বয়ং দেশের প্রধানমন্ত্রী

মৃত্যু মিছিলেও ভ্রুক্ষেপ নেই প্রেসিডেন্ট বলসোনারোর, সৈকতে কবর খুঁড়ে প্রতিবাদে দেশবাসী

দেশে করোনা সংক্রমণে একনম্বরে রয়েছে মহারাষ্ট্র। রাজ্যটিতে আক্রান্তের সংখ্যা ১ লক্ষ পার করে গিয়েছে। দেশের আক্রান্তের এক তৃতীয়াংশ মানুষই এই রাজ্যের।  এরপরেই রয়েছে দক্ষিণের রাজ্য তামিলনাড়ু। এই রাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা  ৪০ হাজারের বেশি। আর রাজধানী দিল্লিতে মারণ ভাইরাসের শিকার ৩৪ হাজারেরও বেশি মানুষ।  

বর্তমান বিশ্বে করোনা আক্রান্ত দেশের তালিকায় ৪ নম্বরে রয়েছে ভারত। সামনে কেবল রয়েছে আমেরিকা, ব্রাজিল ও রাশিয়া। আনলক ওয়ানের মধ্যে দেশের করোনা পরিস্থিতি ক্রমেই খারাপের পথে এগোচ্ছে। এই অবস্থায় আগামী ১৬ ও ১৭ জুন ফের একবার সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে আলোচনায় বসতে চলেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। 

১৬ জুন বৈঠকের প্রথম দিন প্রধানমন্ত্রী কথা বলবেন পঞ্জাব, অসম, কেরল, উত্তরাখণ্ড, ছত্তিশগড়, ত্রিপুরা, হিমাচলপ্রদেশ, চণ্ডীগড়, গোয়া, মণিপুর, নাগাল্যান্ড, লাদাখ, পুদুচেরি, অরুণাচলপ্রদেশ, মিজোরাম, মেঘালয়, আন্দামান ও নিকোবার, দাদর ও নগর হাভেলি, দমন ও জিউ, সিকিম ও লাক্ষাদ্বীপের মুখ্যমন্ত্রী ও রাজ্যপালেদের সঙ্গে।

আর ১৭ জু মোদী কথা বলবেন দিল্লি, মহারাষ্ট্র, তামিলনাড়ু, গুজরাত, রাজস্থান, উত্তরপ্রদেশ, মধ্যপ্রদেশ, পশ্চিমবঙ্গ, কর্ণাটক, বিহার, অন্ধ্রপ্রদেশ, জম্মু ও কাশ্মীর, হরিয়ানা, তেলেঙ্গনা ও ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী ও রাজ্যপালেরেদর সঙ্গে।