রোগীর দেহ থেকে অস্ত্রোপচার করে বাদ দেওয়া হল ৭.৪ কেজি ওজনের কিডনি। রাজধানী দিল্লি সাক্ষী থাকল এমন ঘটনার। দাবি করা হচ্ছে, বাদ দেওয়া কিডনিটিই  এখনও পর্যন্ত ভারতের  সবচেয়ে বড় ওজনের কিডনি বলে দাবি করা হচ্ছে। এর ওজন প্রায় দুটি নবজাতকের ওজনের সমান।  ৫৬ বছরের এক ব্যক্তির দেহ থেকে কিডনিটি বাদ দেওয়া হয়। 

দিল্লির শ্রী গঙ্গারাম হাসপাতালে ২ ঘণ্টা ধরে চলে গোটা অস্ত্রোপচার। অপারেশন করে কিডনিটি বাদ দেন চিকিৎসক সচিন কাঠুরিয়া।

সাধারণত মানব দেহে একটি কিডনির ওজন হয় প্রায় ১২০ থেকে ১৫০ গ্রাম। সেখানে কিডনিটির ওজন ছিল ৭.৪ কেজি। ওই রোগী এক ধরণের কিডনির রোগে ভুগছিলেন, যার নাম অটোস্মল ডমিনান্ট পলিসিক ডিজিজ, এর ফলে সমস্ত কিডনিতে সিস্ট তৈরি হচ্ছিল। যার ফলে কিডনি আকারে বড় হয়ে যাচ্ছিল। রোগীর কিডনিতে সংক্রমণ ও অভ্যন্তরীণ রক্তপাতও শুরু হয়। সেজন্যই কিডনি অপসারণ করতে হয় বলে জানান চিকিৎসক সচিন কাঠুরিয়া। 

অপারেশনের সময় চিকিৎসকরা কিডনির আকার বড় হবে তা ধারণা করেছিলেন, কিন্তু তা যে আকারে এত বড় হবে তা তাঁদের ধারণার অতীত ছিল। কিডনির ওজন ও আয়তন দেখে বিস্মিত সকলেই। 

গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ড অনুযায়ী সর্বোচ্চ  ৪.৫ কেজি ওজনের কিডনি হদিশ পাওয়া গেছে। যদিও ইজরায়েলের বিভিন্ন জার্নালে এর চেয়ে বড় আকারের কিডনির খবর প্রকাশিত হয়েছে। আমেরিকায় ৯ কেজি এবং নেদারল্যান্ডে ৮.৭ কেজি ওজনের কিডনি পাওয়া গেছে।