ইন্ডিয়া গেটের অমর জওয়ান জ্যোতিতে নয় আগামী ২৬ জানুয়ারি দিল্লির ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়ালে যাবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সেখান থেকেই করবেন শ্রদ্ধাজ্ঞাপন। এই অনুষ্ঠানে থাকবেন চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ বিপিন রাওয়াত ও তিন বাহিনীর প্রধানরা। তারপরেই শুরু হবে প্রজাতন্ত্র দিবসের প্যারেড। জানালেন প্রজাতন্ত্র দিবসের ডেপুটি কমান্ডার মেজর জেনারেল অলোক কক্কর।

আরও পড়ুন: দিল্লি ভোটের প্রচারে মোদীর 'চায়ে পে চর্চা' এবার কেজরির অস্ত্র, নাম দিলেন 'কাম কি চায়'

প্রতিবছর অমর জওয়ান জ্যোতিতে প্রধানমন্ত্রীর পুষ্পস্তক অর্পণের মধ্যে দিয়ে শুরু হয় রাজধানীর সাধারণতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠান। এবারই প্রথমবার সেই রীতির বদল ঘটনো হচ্ছে। প্রথমবার ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়ালের সামনে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করবেন প্রধানমন্ত্রী। অন্যবারের মতো অমর জওয়ান জ্যোতি ও ইন্ডিয়া গেটে পুষ্পস্তবক অর্পণের কোনও অনুষ্ঠান রাখা হচ্ছে না।

গত বছর ২৫ ফেব্রুয়ারি নরেন্দ্র মোদী ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়ালের উদ্বোধন করেন। দেশের জন্য শহিদ হওয়া জওয়ানদের প্রতি শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করতেই এই ওয়ার মেমোরিয়ালের সূচনা হয়। শহিদদের প্রতি সম্মানে অমর জওয়ান জ্যোতিতে সারা বছরই অনির্বাণ শিলা জ্বলে। গত বছর ২৫ ফেব্রুয়ারি ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়ালেও অনির্বাণ শিখা জ্বালানো হয়। 

আরও পড়ুন: চোখে সানগ্লাস, হাতে বন্দুক, ঘোড়ায় চেপে বিয়ে করতে গেলেন দুই বোন

এবারের প্রজাতন্ত্র দিবসের প্যারেডে উপস্থিত থাকছেন চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ। আর এই প্যারেডের সময় সিগনাল কর্পসকে নেতৃত্ব দেবেন চতুর্থ প্রজন্মের সেনা আধিকারিক ক্যাপ্টেন তানিয়া শেরগিল। রাজধানীতে মোট ১৬টি দল প্য়ারেড করবে। যারমধ্যে স্থল, নৌ ও বায়ুসেনার পাশাপাশি আধাসামরিক বাহিনীর সদস্যরাও থআকবেন। চার বছর বাজে বিশেষ বাহিনীর সদস্যরাও প্যারেডে অংশ গ্রহণের সুযোগ পাচ্ছেন।থাকবে ৩১টি ব্যান্ড।

নয়া দিল্লিতে ইতিমধ্যেই প্যারেডের ড্রেস রিহার্সালও হয়ে গিয়েছে। এবার ২৬ জানুয়ারি প্রজাতন্ত্র দিবসের ন্যাশনাল ওয়ার মেমোরিয়ালের অনুষ্ঠানে থাকবেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্টও। এই সময়ে চারদিনের ভারত সফরে আসছেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট বলসোনারো।