রাজ্যসভার ২৪টি আসনের নির্বাচন চলছে। এই ২৪টি আসনের মধ্যে রয়েছে কর্ণাটকের ৪ জন এবং অরুণাচল প্রদেশের ১ জন প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। নির্বাচন হচ্ছে অন্ধ্রপ্রদেশের ৪টি, গুজরাতের ৪টি, ঝাড়খণ্ডের ২টি, মধ্যপ্রদেশ ৩টি, মণিপুরের ১টি, মেঘালয়ের ১টি, মিজোরামের ১টি এবং রাজস্থানের ৩টি -আসনের নির্বাচন চলছে। বেশ কয়েকটি আসনের ফলাফল এখনই চলে এসেছে, বাকিগুলিও কিছুক্ষণের মধ্যেই এসে যাবে।


রাজ্যসভার ২৪টি আসনের নির্বাচন চলছে। এই ২৪টি আসনের মধ্যে রয়েছে কর্ণাটকের ৪ জন এবং অরুণাচল প্রদেশের ১ জন প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। নির্বাচন হচ্ছে অন্ধ্রপ্রদেশের ৪টি, গুজরাতের ৪টি, ঝাড়খণ্ডের ২টি, মধ্যপ্রদেশ ৩টি, মণিপুরের ১টি, মেঘালয়ের ১টি, মিজোরামের ১টি এবং রাজস্থানের ৩টি -আসনের নির্বাচন চলছে। বেশ কয়েকটি আসনের ফলাফল এখনই চলে এসেছে, বাকিগুলিও কিছুক্ষণের মধ্যেই এসে যাবে।

অরুণাচল প্রদেশের ১টি মাত্র আসনে জয়ী হয়েছেন বিজেপি প্রার্থী নবম রেবিয়া।

অন্ধ্রপ্রদেশের চারটি আসনের চারটিতেই জয়ী হয়েছে জগনমোহন রেড্ডির ওয়াইএসআর কংগ্রেসের প্রার্থীরা।  

গুজরাতের চারটি আসনের ফল এখনও ঘোষণা করা হয়নি। টক্কর চলছে বিজেপি ও কংগ্রেসের মধ্যে।
 
ঝাড়খণ্ডের ২টি আসনের একটিতে জয়ী হয়েছে বিজেপি, আরেকটিতে জয়ী রাজ্যের শাসক দল ঝাড়খণ্ড মুক্তি মোর্চা।

মধ্যপ্রদেশের ৩টি আসনের একটিতে জিতেছেন কংগ্রেস নেতা দিগ্বিজয় সিং। বাকি দুটি আসনে জয়ী হয়েছেন বিজেপি প্রার্থী। প্রথমবার রাজ্যসভায় চলেছেন কংগ্রেস থেকে তিম মাস আগে গেরুয়া শিবিরে আসা জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া।

মণিপুরের গত কয়েকদিনে দারুণ রাজনৈতিক টানাপোড়েন চলছিল। অনেকেই মনে করেছিলেন বিজেপির পক্ষে এই রাজ্যের একমাত্র আসনে জেতা সম্ভব হবে না। কিন্তু, শেষ পর্যন্ত এই রাজ্যে জয়ী হয়েছেন বিজেপি প্রার্থীই।

পাশের রাজ্য মেঘালয়ে কংগ্রেস প্রার্থীকে পিছনে ফেলে রাজ্যসভায় যাচ্ছেন ন্যাশনাল পিপলস পার্টির প্রার্থী।

কর্নাটকের চারটি আসনেও ভোটাভুটির দরকার হয়নি। এই রাজ্যের চার আসনের মধ্য়ে দুটিতে জয়ী হয়েছেন বিজেপি প্রার্থীরা। বাকি দুটি আসনের একটিতে জয়ী হয়েছেন কংগ্রেস নেতা মল্লিকার্জুন খাড়গে এবং কংগ্রেসের সমর্থনে রাজ্যসভায় পা রাখছেন বর্ষিয়ান জেডিএস নেতা তথা ভারতের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী এইচডি দেবেগৌড়া।

মিজোরামের একটি আসনের লড়াই এখনও চলছে।

রাজস্থানের কি ফল হয়, সেই দিকেও সবার নজর ছিল। গত কয়েকদিনে কংগ্রেস এবং বিজেপি, দুই দলই বিধায়কদের কেনাবেচা আটকাতে আলাদা আলাদা রিসর্টে রেখেছিল। শেষ পর্যন্ত কোনও দলেই ভাঙন ধরেনি। কংগ্রেসের জিতেছে দুটি আসনে। তারমধ্যে একজন কংগ্রেসের বিশিষ্ট নেতা কেসি বেনুগোপাল। আর তৃতীয় আসনে জয়ী হয়েছেন বিজেপি প্রার্থী।