Asianet News BanglaAsianet News Bangla

SCO সম্মেলন: তিন দেশের প্রধানের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করবেন মোদী, কথা হবে বাণিজ্য নিয়েও

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী শুক্রবার সমরকন্দে এসসিও শীর্ষ সম্মেলনের ফাঁকে রাশিয়া, ইরান ও উজবেকিস্তানের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করবেন। বৃহস্পতিবার রাতেই তিনি উজবেকিস্তান পৌঁছেছেন। 

sco pm modi to hold talks with Russian president putin Iran Uzbekistan bsm
Author
First Published Sep 16, 2022, 8:10 AM IST

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী শুক্রবার সমরকন্দে এসসিও শীর্ষ সম্মেলনের ফাঁকে রাশিয়া, ইরান ও উজবেকিস্তানের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করবেন। বৃহস্পতিবার রাতেই তিনি উজবেকিস্তান পৌঁছেছেন। সেখানে তাঁকে স্বাগত জানান দেশের  প্রধান আবদুল্লাহ আরিপভ। আজ শীর্ষ বৈঠক হবে। তারপর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী তিন দেশের প্রধানদের সঙ্গে বৈঠক করবেন। 


প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বিদেশ সফরের আগেই বলেছিলেন তিনি উজবেকিস্তানের রাষ্ট্রপতি শাভকাত মির্জিওয়েভের আমন্ত্রণের সমরকন্দ সফর করবেন। যাতে রাষ্ট্র প্রধানদের কাউন্সিলের বৈঠকে যোগ দিতে পারেন সাংহাই কো অপারেশন অর্গানাইজেশনের বৈঠকের সময়। 

শীর্ষ সম্মেলনের সময় মোদী প্রাসঙ্গিক আঞ্চলিক ও আন্তর্জাতিক ইস্যু, এসসিও-র সম্প্রসারণ ও সংস্থার মাধ্যমে বহুমুখী ও পারস্পরিক সহযোগিতা আরও দৃঢ়় করার বিষয়ে মত বিনিময় করবেন। বাণিজ্য, অর্থনীতি, সংস্কৃতি ও পর্যটকের ক্ষেত্রে উন্নয়নের রাস্তা যাতে আরও সম্প্রসারিত হয় সেই দিকেও আলোকপাত করবেন। 

২০০১ প্রতিষ্ঠিত এসসিও একটি আঞ্চলিক বহুপাক্ষিক সংস্থা। যেখানে সদস্য দেশ আটটি- ভারত, রাশিয়া, ইরান, চিন, কাজাখস্তান, কিগিজস্তান, তাজিকস্তান ও উজবেকিস্তান। ভারত ২০১৭ সালে এসসিও-র পূর্ণ সদস্য হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী তারপর থেকেই এই সম্মেলনে ভারতের হয়ে নেতৃত্ব দিচ্ছিন। তিনি প্রতিবছরই এই সম্মেলনে যোগদান করেন। মহামারির সময় ভার্চুয়াল মাধ্যমে অনুষ্ঠিত হয়েছিল এই সম্মেলন। 

শীর্ষ সম্মেলনে দুটি অধিবেশন থাকবে- প্রথমটি এসসিও সদস্যদের মধ্যে সীমাবদ্ধ। দ্বিতীয়টি পর্যবেক্ষকদের। এই সম্মেলনে চলতি বছর বিশেষ অতিথিরাও অংশ নেবেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে থাকবেন সৌদি আরব, তুর্কমেনিস্তান, তুরস্ক ও আর্মেনিয়ার প্রতিনিধিরা। 

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বৃহস্পতিবার সমরকন্দে চীনের প্রধানমন্ত্রী শি জিংপিং এবং পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী শাহবাজ শরিফের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক আলোচনা করেছেন। পুতিন বেইজিংয়ের "এক চীন" নীতিকে সমর্থন করেছেন এবং "তাইওয়ান প্রণালীতে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের উস্কানি" এর বিরোধিতা করেছেন। "ইউক্রেন সংকটের ক্ষেত্রে আমরা আমাদের চীনা বন্ধুদের ভারসাম্যপূর্ণ অবস্থানকে অত্যন্ত মূল্যায়ন করি," বলেছেন পুতিন। তবে ভারত এই সম্মেলনের সময়ে বেশ কয়েকটি দেশের সঙ্গে কথা বললেও চিনের রাষ্ট্রপতি শি জিংপিং-এর সঙ্গে কথা হবে কিনা তা নিয়ে রয়েছে সংশয়। 

রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিনের ওপর মারাত্মক হামলা, গাড়ির কাছে ভয়াবহ বিস্ফোরণ

এসসিও সম্মেলনে যোগ দিতে উজবেকিস্তানের পথে মোদী, নজর রাশিয়া ও চিনের সঙ্গে বৈঠকে

প্রকৌশল শিক্ষাকে আরও উন্নত করার প্রতিশ্রুতি, ইঞ্জিনিয়ারিং দিবসে মোদীর নতুন দিশার ঘোষণা

Follow Us:
Download App:
  • android
  • ios