তামিলনাড়ুতে তৈরি হল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর মন্দির। মন্দিরে অবশ্য নরেন্দ্র মোদীর মূর্তির পাশাপাশি তামিলনাড়ুর প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জয়ললিতা, বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী এদাপাদি পলানিস্বামী এবং কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ-এর ছবিও রাখা হয়েছে। তিরুচিরাপল্লী থেকে ৬৩ কিলোমিটার দূরের গ্রাম ইরাকুদি-তে নিজের চাষের জমিতেই এই মন্দিরটি তৈরি করেছেন এক কৃষক।

কেমন সেই মন্দির?

সামনেই জনগণকে স্বাগত জানায় একটি ঐতিহ্যবাহী 'কোলাম' বা আলপনা। মন্দিরটি ৮x৮ ফুট এলাকায় তৈরি। ছাদে রয়েছে টালির আচ্ছাদন। আর ভিতরে রয়েছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ট্রেডমার্ক সাদা দাড়ি এবং চুল-সহ হাসিমুখের একটি আবক্ষ মূর্তি। সেই মূর্তির কপালে রয়েছে তিলক। পরণে রয়েছে গোলাপী রঙের কুর্তা এবং নীল শাল। আর তাঁর মূর্তির দুপাশে রয়েছে দুটি প্রদীপ। এছাড়া মূর্তিটিকে সাজানো হয়েছে মালা এবং ফুল দিয়ে।

কিন্তু কেন হঠাৎ প্রধানমন্ত্রীর মন্দির?

বছর ৫০-এর ওই কৃষকের নাম পি শঙ্কর। তিনি জানিয়েছেন তিনি প্রধানমন্ত্রীর কিষাণ সম্মান নিধি-তে ২০০০ টাকা, প্রধানমন্ত্রী উজ্জ্বলা যোজনায় গ্যাস সংযোগ, এবং স্বতন্ত্র শৌচাগার প্রকল্পে নতুন শৌচাগার-এর সুবিধা পেয়েছেন। সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে বলেছেন, এই জাতীয় উদ্যোগের জন্যই তিনি প্রধানমন্ত্রীর ভক্ত হয়ে গিয়েছেন। এছাড়া নরেন্দ্র মোদীর ব্যক্তিত্বও তাঁর খুব পছন্দের। তাই গত সপ্তাহে মন্দিরটি উদ্বোধন হওয়ার পর থেকে রোজ তিনি মোদীর আরতি করেন। প্রায় আট মাস আগে কাজ শুরু করেছিলেন। আর্থিক প্রতিবন্ধকতার কারণে খুব দ্রুত কাজ শেষ হয়নি।