বিতর্কের জেরে শেষ পর্যন্ত ক্ষমা চাইলেন টিকটক স্টার সোনালি ফোগাত। হরিয়ানা বিধানসভা নির্বাচনে নিজেকে বিজেপির প্রার্থী হিসেবে দাবি করা এই সোনালি বলেছিলেন, যারা ভারত মাতা কি জয় উচ্চারণ করে না তারা পাকিস্তানি। আর তার এই মন্তব্যকে কেন্দ্র করেই ওঠে বিতর্কের ঝড়। আর তা থামাতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্ষমা চাইলেন এই টিকটক স্টার।

কী ঘটেছিল?
বিজেপির আদমপুরের প্রার্থী এবং টিকটক সেনসেশন সোনালি ফোগাত মঙ্গলবার একটি ব়্যালিতে কয়েকজন যুবকের উদ্দেশ্যে একটি মন্তব্য ছুঁড়ে দেন। তিনি এবং উপস্থিত অনেকে ভারত মাতা কি জয় বললেও কয়েকজন যুবক তা বলেনি। এবং তারা পাকিস্তান থেকে এসেছে কি না সেই প্রশ্নই তাদের করেন সোনালি। 

মুসলিম দম্পতিকে জয় শ্রীরাম বলতে বাধ্য করার অভিযোগ, চলল যৌন হেনস্তাও

তিনি বলেন, 'পাকিস্তান থেকে এসেছো নাকি? পাকিস্তানি তোমরা? হিন্দুস্তানের হলে ভারত মাতা কি জয় বল।' উপস্থিত এমনই কয়েকজন তরুণের উদ্দেশ্যে তিনি আরও বলেন, 'তোমাদের মতে কয়েকজন ভারতবাসী পেটি পলিটিক্স করতে গিয়ে ভারত মাতা কি জয় বলতে পারো না, যা অত্যন্ত লজ্জার।'

সোনালি টুইটারে জানান, এই স্লোগান উচ্চারণের মাধ্যমে দেশকে শ্রদ্ধা জানানোর কথাই তিনি বলতে চেয়েছিলেন। তবে তার মন্তব্যে কাওকে আঘাত করলে তিনি ক্ষমাপ্রার্থী। 

কুঁড়েঘরের মধ্যে লক্ষ লক্ষ টাকা, ভিখারির মৃত্যুর পরে ৮ ঘন্টা ধরে পয়সা গুনল পুলিশ

প্রসঙ্গত, এই সোনালি ফোগাতকে প্রায়শই টিকটক ভিডিওতে দেখা যায়। তিনি বিজেপির আদমপুর বিধানসভা কেন্দ্রের প্রার্থী। এই কেন্দ্রে তাঁর বিপরীতে রয়েছেন কংগ্রেসের কুলদীপ বিষ্ণোই। আগামী ২১ অক্টোবর হরিয়ানা বিধানসভা নির্বাচন, যার ফলাফল প্রকাশিত হবে ২৪ অক্টোবর।