ভারত সফরের দ্বিতীয় দিন চরম ব্যস্ততার মধ্যে কাটছে  মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পে। সকালে রাষ্ট্রপতি ভবনে গার্ড অব অনরা দিয়ে শুরু। এরপর রাজঘাটে গান্ধীজির সমাধিতে শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের পর সোজা হায়দরাবাদ হাউসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে বৈঠক। স্বামীর সঙ্গে রাষ্ট্রপতি ভবন ও রাজঘটে গিয়েছিলেন মার্কিন ফার্স্ট লেডি মেলানিয়া ট্রাম্পও। কিন্তু হায়দরাবাদ হাউসে দুই দেশের রাষ্ট্রনায়কদের মধ্যে বৈঠক শুরু হতেই তিনি পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি অনুযায়ী পাড়ি জামলেন দিল্লির সরকারি হাইস্কুলে। ট্রাম্প যখন মোদীর সঙ্গে দর কষাকষিতে ব্যস্ত তখন মেলানিয়া মজে থাকলেন খুদে পড়ুয়াদের সঙ্গে। 

 

 

আরও পড়ুন: ফাস্টফুড লাভার ট্রাম্পের জন্য ১০৭ কেজির ইডলি, তাক লাগালেন চেন্নাইয়ের শেফ

 

 

মঙ্গলবার বেলা ১১টা ৫০ নাগাদ দিল্লির নানকপুরার সর্বোদয় কো-এডুকেশন স্কুলে আসেন মার্কিন ফার্স্টলেডি মেলানিয়া ট্রাম্প। ফুলের তোড়ায় তাঁকে স্বাগত জানায় খুদেদের দল। পড়ুয়াদের সঙ্গে সহজেই  মিশে যান মেলানিয়াও। 

 

মার্কিন ফার্স্টলেডি মেলানিয়ার জন্য এক সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন হয়েছিল স্কুল চত্বরে। মেলানিয়া ট্রাম্পকে ভাঙড়া নেচে দেখাল খুদেরা। এরপর দিল্লির  সরকারি স্কুলগুলিতে পড়ানোর পদ্ধতি ক্লাসে বসে দেখলেন মার্কিন ফার্স্ট লেডি। হ্যাপিনেস ক্লাসে যোগ দিয়ে নিলেন খুশি থাকার পাঠ। খুদে পড়ুয়াদের সঙ্গে দেখা করে তিনি যে আপ্লুত সেই কথাও জানাতে ভুললেন না মার্কিন ফার্স্টলেডি। 

 

আরও পড়ুন: রাষ্ট্রপতি ভবনে ট্রাম্পকে 'গার্ড অব অনার', রাজঘাটে মেলানিয়াকে নিয়ে গেলেন শ্রদ্ধা জানাতে

 

এদিকে মার্কিন ফার্স্ট লেডির এই স্কুল সফর ঘিরে নিরাপত্তার কঠোর বেড়াজালে মুড়ে ফেলা হয়েছিল গোটা চত্বর। যার জেরে মেলানিয়ার সঙ্গী হওয়ার তালিকা থেকে স্বয়ং বাদ পড়তে হয় দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল ও উপমুখ্যমন্ত্রী মনীশ শিশোদিয়াকে। বিশেষ কয়েকটি সংবাদমাধ্যম ছাড়া প্রবেশের অনুমতি ছিল না কারও। ভারত সফরে আগেই দিল্লির সরকারি স্কুলে হ্যাপিনেস ক্লাস দেখার ব্যাপারে আগ্রহ প্রকাশ করেছিলেন ট্রাম্প ঘরণী। আপ সরকার ক্ষমতায় আসার পর দিল্লির সরকারি স্কুলে বছর দুয়েক আগে এক হ্যাপিনেস ক্লাস চালু করা হয়।