শনিবার সকালে ৯৬ লক্ষের গণ্ডি ছাড়িয়ে গেল ভারতের মোট করোনা রোগীর সংখ্যা। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যান মন্ত্রক এদিন সকালে জানিয়েছে, গত ২৪ ঘন্টায় ভারতে ৩৬,৬৫২ টি নতুন কোভিড সংক্রমণ ধরা পড়েছে। যার ফলে ভারতের মোট কোভিড কেসের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯৬,০৮,২১১-তে।

স্বাস্থ্য মন্ত্রক আরও জানিয়েছে গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৫১২ জনের। যার ফলে ভারতে এখনও পর্যন্ত কোভিডে মৃত্যু হল মোট ১,৩৯,৭০০ জনের। তবে অ্যাকটিভ কেস অর্থাৎ চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যাটা কমতে কমতে এখন প্রায় ৪ লক্ষে নেমে এসেছে। স্বাস্থ্য মন্ত্রকের পরিংসখ্যান বলছে শনিবার সকাল পর্যন্ত ভারতের মোট চিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যা ৪,০৯,৬৮৯ জন। যা ভারতের মোট কোভিড কেসের মাত্র ৪.২৬ শতাংশ।

আরও পড়ুন - 'কৃত্রিম সূর্য' তৈরি করে ফেলল চিন, তাপমাত্রা আসল সূর্যের থেকেও ১০ গুণ বেশি

আরও পড়ুন - রোহিঙ্গাদের 'ভাসমান কারাগার'এ পাঠাচ্ছে বাংলাদেশ, খাদের মুখে মানবাধিকার, দেখুন ছবিতে ছবিতে

আরও পড়ুন - নেতাজি অন্তর্ধান রহস্য - কী জানতেন জওহরলাল নেহেরু, এখনও কি গোপন নথি রয়েছে গান্ধী পরিবারে

টিকিৎসাধীন রোগীর সংখ্যা কমার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বেড়ে চলেছে ভারতের সুস্থতার হারও। স্বাস্থ্য মন্ত্রক এদিন জানিয়েছে, মোট ৯০,৫৮,৮২২ জন করোনা রোগী এই পর্যন্ত সুস্থ হয়ে উঠেছেন বা হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেয়ে গিয়েছেন। তারমধ্যে শুক্রবারই কোভিড জয় করেছেন ৪২,৫৩৩ জন। সুস্থতার হার বেড়ে এখন ৯৪.২৮ শতাংশ।

ভারতের রাজ্যগুলির মধ্যে কোভিডে সবচেয়ে বিধ্বস্ত রাজ্যগুলির তালিকায় এখনও শীর্ষে মহারাষ্ট্রই (মোট আক্রান্ত ১৭,১০,০৫০ জন)। তবে এই রাজ্যেকর চিকিৎসাধীন রোগীর শতাংশ হার এখন ৫। এই দিক থেকে ভয় ধরাচ্ছে কেরল (চিকিৎসাধীন ১০%), রাজস্থান (চিকিৎসাধীন ৯%), ছত্তিশগড় (চিকিৎসাধীন ৮%)-এর মতো রাজ্যগুলি।

অন্যদিকে, ইন্ডিয়ান কাউন্সিল ফর মেডিকাল রিসার্চ বা আইসিএমআর জানিয়েছে, শুক্রবার ভারতে ১১,৫৭,৭৬৩টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে করোনার জন্য। সব মিলিয়ে এই পর্যন্ত ভারতে মোট কোভিড পরীক্ষা করা হয়েছে ১৪,৫৮,৮৫,৫১২টি।